মেইন ম্যেনু

ব্রেক্সিটের চিঠিতে স্বাক্ষর করেছেন টেরেসা মে

ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে ব্রিটেনের বিদায় বা ব্রেক্সিটের প্রক্রিয়া শুরু করার জন্য ইইউয়ের উদ্দেশ্যে লেখা একটি চিঠিতে স্বাক্ষর করেছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে। চিঠিটি আগামী বুধবার ইউরোপীয় কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড টাস্কের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

টেরেসা মের স্বাক্ষরিত চিঠিটি ডোনাল্ড টাস্কের কাছে হস্তান্তর করার পরই শুরু হবে এই বিচ্ছেদের শর্তাবলী নিয়ে দুই বছরব্যাপী দেনদরবার। লিসবন চুক্তির পঞ্চদশ অনুচ্ছেদের অধীনে ইইউ কর্মকর্তাদের ওই চিঠিটি দেয়া হবে।

বুধবার স্থানীয় সময় সকালে মন্ত্রীসভার বৈঠকে এমপিদের উদ্দেশ্যে একটি বিবৃতি দেবেন টেরেসা মে। সেখানে তিনি তাদের অবহিত করবেন যে ইইউ থেকে যুক্তরাজ্যের বিদায়ের সময় গণনা শুরু হয়েছে।

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে জানানো হয়েছে যে, তিনি আলোচনার সময় যুক্তরাজ্যের প্রতিটি মানুষের প্রতিনিধিত্ব করবেন, যাদের মধ্যে ব্রিটেনে বসবাসরত ইইউ নাগরিকরাও রয়েছেন। ব্রেক্সিটের ফলে তাদের ভাগ্যে কী হবে সেটি এখনো অনিশ্চিত।

গত বছরের জুনে এক গণভোটে ব্রিটেনের ইইউ থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত দেয় ব্রিটিশ নাগরিকরা। মে তার বক্তব্যে ব্রেক্সিটকে ঘিরে যে বিভক্তি তৈরি হয়েছে তা থেকে উত্তরণের বিষয়েও কথা বলবেন।

এদিকে, বিরোধী লেবার দলের নেতা জেরেমি করবিন বলেছেন, ইইউ থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত তার দল সম্মান করে, তবে সরকারের প্রতিটি পদক্ষেপের দিকেই তারা নজর রাখবেন।

পঞ্চদশ অনুচ্ছেদ দুই পক্ষকেই একটি চুক্তিতে পৌছানোর জন্য দুই বছর সময় দেবে। যদি দুই পক্ষই সময় বাড়াতে সম্মত না হয়, তবে ২০১৯ সালের ২৯শে মার্চ ইইউ থেকে বিদায় নেবে যুক্তরাজ্য।






মন্তব্য চালু নেই