মেইন ম্যেনু

বিশ্বকাপে চমক দেখাতে চান রুবেল

অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের উইকেট মানেই বাউন্সি। পেসারদের স্বর্গরাজ্য। এমন উইকেটে চমকই দেখাতে চান বাংলাদেশের বিতর্কিত পেসার রুবেল হোসেন।

রোববার মিরপুরের শের-ই বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুশীলন করতে এসে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে এভাবেই নিজের স্বপ্নে কথা জানান রুবেল।

প্রেমিকার করা ধর্ষণ মামলার পর বেশ কিছুদিন লোকচক্ষুর অন্তরালে ছিলেন জাতীয় দলের এই পেসার। অবশেষে রোববার মিরপুরে আসেন তিনি। ওয়ালটন ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের ক্লাব লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জের হয়ে মিরপুরে কঠোর অনুশীলন করেন।

দুপুর আড়াইটায় মিরপুরের শের-ই বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামের ইনডোরে শুরু হওয়া অনুশীলনে বিরতিহীন ভাবে টানা ২০ওভার বল করেছেন রুবেল। এসময় অনুশীলনে রুবেলকে ফুরফরে মেজাজেই দেখায়।

তবে সাংবাদিকদের উপস্তিতি দেখে রুবেলকে অনেকটাই চিন্তিত মনে হয়। তার আলোচিত ঘটনা নিয়ে কোন মন্তব্য করতে রাজি না হলেও শেষপর্যন্ত বিশ্বকাপের প্রস্তুতি ও লক্ষ্য নিয়ে মিডিয়ার সঙ্গে কথা বলেন তিনি।

তার কথাগুলোই বাংলামেইলের পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো।

বিশ্বকাপের ৩০ জনের দল ঘোষণা করা হয়েছে। মুল ১৫ জনের স্কোয়াডে যায়গা পাওয়ার ব্যাপারে কতটা আশাবাদি এমন প্রশ্নে রুবেল বলেন, ‘আমি অনেক আশাবাদি যে বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ পাবো। কারণ সর্বশেষ জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে ভালো বল করেছি। সেভাবেই এখন প্রস্তুতি নিচ্ছি। প্রিমিয়ার লিগ চলছে। এখানকার ম্যাচগুলোও অনেক গুরুত্বপূর্ণ। আমি মাত্র দুটি ম্যাচ খেলেছি। আমাদের দলও সুপার সিক্সে উঠেছে। সেই ম্যাচগুলোতে নিজেকে প্রমাণ করার চেষ্টা করবো। আশাকরি বিশ্বকাপে সুযোগ পাবো। আর বিশ্বকাপ খেলোয়াড়দের জন্য স্বপ্ন। এটি হবে আমার দ্বিতীয় বিশ্বকাপ। খেলার সুযোগ পেলে ভালো করবো।’

বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার বাউন্সি উইকেটে স্পিনারদের চেয়ে পেসারদের ওপর বাড়তি কোন চাপ থাকবে কি না? রুবেল বলেন, ‘অস্ট্রেলিয়া যে সিরিজগুলো হচ্ছে সেখানে পেস বোলাররা সুবিধা নিয়ে থাকে। ওখানে তিনটা-চারটা পেস বোলার খেলায়। ওভাবেই হয়তো আমাদের দল গঠন করা হবে। সেখানে আমাদের ওপর (পেস বোলার) দায়িত্ব থাকবে বেশি। কারণ অস্ট্রেলিয়ার উইকেট পেস সহায়ক হয়। আর সে ভাবেই মনে হয় আমাদের পেসারদের সেটাপ করা হবে।’

বিশ্বকাপে দলে সুযোগ পেলে ব্যাক্তিগত লক্ষ্যও রয়েছে তার। শুধুই তাই নয়। দেশের হয়ে অস্ট্রেলিয়ার উইকেটে চমক দেখাতে চান তিনি। এ বিষয়ে জানতে চাইলে জাতীয় দলের পেসার বলেন, ‘বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ পেলে, অবশ্যই দেশের জন্য খেলবো। বিশ্বকাপে এমন কিছু করতে চাই যা দেশের মানুষ মনে রাখে।’






মন্তব্য চালু নেই