মেইন ম্যেনু

ফেসবুকে চলছে প্রতারনার খেলা

সামাজিক যোগাযোগের জনপ্রিয় মাধ্যম এখন ফেসবুক। বন্ধু খোঁজা আর বন্ধুত্ব বাড়ানোর বিস্তীর্ণ প্লাটফর্ম। এ বন্ধুত্বের সীমা স্থান, বয়স আর দেশের গণ্ডি মানে না। আর এ অসম বন্ধুত্বের বেড়াজালে আটকে অনেকে হচ্ছেন সর্বস্বান্ত। ঘর ভাঙছে, প্রতারিত হয়ে সম্মান হারাচ্ছেন। আত্মহত্যার পথ বেছে নিচ্ছেন। অনলাইন দুনিয়ায় প্রতারক চক্রের খপ্পরে পড়ে অনেক বিখ্যাত মানুষও নাস্তানাবুদ হচ্ছেন। এর মাধ্যমে মানুষ যোগাযোগ সহ মনের ভাব প্রকাশ করে থাকে ।যুব সমাজের কাছে এই সাইট অত্যধিক জনপ্রিয় । আর এই জনপ্রিয়তার সুযোগে কিছু অসাধু ব্যাক্তি প্রতারণার আশ্রয় গ্রহন করছে ।এই অসাধু ব্যক্তি কিছু মেয়ের ছবি দিয়ে ভুয়া আইডি খুলে এ ধরনের প্রতারণা করছে ।

এই প্রতারণার শিকার হচ্ছে ফেসবুক ব্যবহারকারী কিছু যুবক-যুবতীরা। যুবকরা সুন্দর মেয়ের ছবি দেখে বন্ধুত্বের অনুরোধ পাঠায় এবং বন্ধু হবার পরবর্তী সময়ে নিয়মিত চ্যাট করার মাধ্যমে ভাবের আদান প্রদান এরপর শুরু হয় প্রতারণার খেলা । আর একই কারনে ইতিপূর্বে অপহরণ ও ধর্ষণের শিকারও হতে হয়েছে অনেককে বাংলাদেশে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা দিনদিন বাড়ছে এর বেশীর ভাগই তরুন-তরুণী যারা স্কুল কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ।এমনই প্রতারণার শিকার সাঈম (ছদ্মনাম)। নাঈম জানান তিনি বরিশালে পড়াশুনা করেন। ফেসবুকে পরিচয় হয় নিশি নামের এক মেয়ের সাথে তার সাথে নিয়মিত চ্যাট হত।

একদিন সে আমাকে বলে আমিতো ভাইয়ার ল্যাপটপে ফেসবুক ব্যবহার করি ভাইয়া চলে যাবে তখন আমি তোমার সাথে কিভাবে কথা বলব ? আমি তো তোমার সাথে কথা না বলে থাকতে পারব না । তুমি আমাকে একটা মোবাইল কিনে দাও তাহলে তোমার সাথে কথাও বলব চ্যাট ও করব। আমি বললাম তার আগে আমি তোমার সাথে কথা বলতে চাই ও বলল ঠিক আছে কাল কথা হবে।

পরদিন যখন কথা হল তখন মনে হল কেউ তাকে শিখিয়ে দিচ্ছে আমি তাকে এ কথা বলতেই সে রাগ করে। এরপর আমি তাকে বলি ঠিক আছে তুমি যদি রাতে কথা বলতে পার তাহলে আমি তোমাকে ফোন কিনে দিব। এরপর সে নানা অজুহাত দেখায় এবং বলে তোমাকে ফোন দেয়া লাগবে না আর একজন আমাকে ফোন দিবে বলছে। এখন তার আইডির নাম পরিবর্তন করে এরিনা করছে “।

এভাবেই অনেক যুবক প্রতারণার শিকার হচ্ছে ।এছাড়াও ফেসবুকে বিভিন্ন কুরুচিপূর্ণ ছবি আপলোড করার মাধ্যমে বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পরতে হচ্ছে। বিশেষ করে মেয়েদের প্রোফাইলে এ ধরনের ছবি পাঠানো হচ্ছে। আরিফা নামে এক তরুণী বলেন মাঝে মাঝেই কিছু বাজে ছবি ট্যাগ করে যারা করে তাদের ব্লক করে দিই। এভাবেই সামাজিক যোগাযোগের সাইট গুলোর মাধ্যমে নানা অপরাধ সংঘটিত হচ্ছে । দেশের সাইবার আইন কার্যকর না থাকার ফলে এ ধরনের প্রতারণা দিন দিন বাড়ছে ।দেশের সাইবার আইনকে শক্তিশালী করা হলে এ ধরনের অপরাধ কমে আসবে বলে অনেকে মনে করেন ।






মন্তব্য চালু নেই