মেইন ম্যেনু

মরদেহ নেয়া হচ্ছে শরীয়তপুরে

‘নিচে পড়ার ২ ঘণ্টা পর মারা যায় জিহাদ’

রাজধানীর শাহজাহানপুরে পাইপের ভেতর থেকে উদ্ধার করা শিশু জিহাদ নিচে পড়ার দুই ঘণ্টার মধ্যেই মারা যায়। মাথায় আঘাতজনিত কারণ ও পানিতে ডুবে মৃত্যু হয় শিশু জিহাদের।
তার মরদেহের ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসক প্যানেলের প্রধান ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ডা. হাবিবুজ্জামান এ তথ্য জানিয়েছেন।
তার নেতৃত্বেই তিন সদস্যের চিকিৎসক প্যানেল রোববার সকালে জিহাদের মরদেহ ময়নাতদন্ত করেন।
ময়নাতদন্তের পর তিনি বলেন, ‘ধারণা করা হচ্ছে শিশুটি নিচে পড়ার দুই ঘণ্টার মধ্যেই মারা গেছে। শিশুটির মাথায় জখম ছিল। ভেতরে পানিও ছিল।’
রোববার ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে সকাল ৯টার দিকে জিহাদের ময়নাতদন্ত শুরু হয়। তা শেষ হয় পৌনে ১০টার দিকে।
এদিকে ময়নাতদন্ত শেষে গোসল করিয়ে তাকে কাফন পরানো হয়। পরে তার মরদেহ হস্তান্তর করা হয়।
জিহাদের মামা মনির হোসেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে মরদেহ গ্রহণ করে শরীয়পুরের উদ্দেশ্যে রওনা হয়ে গেছেন।
শনিবার বেলা ৩টার দিকে দীর্ঘ প্রায় ২৪ ঘণ্টার রুদ্ধশ্বাস অভিযানের পর জিহাদেকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করে একদল স্বেচ্ছাসেবী।

ময়নাতদন্ত শেষে জিহাদের মরদেহ নেয়া হচ্ছে শরীয়তপুরে
জিয়াদ2রাজধানীর শাহজাহানপুরে পাইপের ভেতর থেকে উদ্ধার করা শিশু জিহাদের মরদেহের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে।
ময়নাতদন্ত শেষে গোসল করিয়ে তাকে কাফন পরানো হচ্ছে। জিহাদের মামা মনির হোসেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে কফিন গ্রহণ করবেন বলে জানা গেছে।
জিহাদের মরদেহ হাসপাতাল থেকে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে শরীয়তপুরের গোসাইরহাই উপজেলায় তাদের গ্রামের বাড়িতে।
রোববার সকাল সোয়া ৯টায় ময়নাতদন্তের কার্যক্রম শুরু হয়। সোয়া ১০টা পর্যন্ত তা চলে।
ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. হাবিবুজ্জামান চৌধুরীকে প্রধান করে গঠিত তিন সদস্যের চিকিৎসক প্যানেল এই ময়নাতদন্ত করেন।
কমিটির অন্য দুই চিকিৎসক হলেন সদস্য সচিব ও সহকারী অধ্যাপক ডা. একে এম শফিউজ্জামান এবং ডা. প্রদীপ বিশ্বাস।
শনিবার বেলা ৩টার দিকে দীর্ঘ প্রায় ২৪ ঘণ্টার রুদ্ধশ্বাস অভিযানের পর জিহাদেকে উদ্ধার করা হয়।






মন্তব্য চালু নেই