মেইন ম্যেনু

‘দিল্লীর নির্দেশে নিজামীর রায় স্থগিত’ : হান্নান শাহ

নয়াদিল্লীর নির্দেশে জামায়াতে ইসলামীর আমির মতিউর রহমান নিজামীর রায় দেয়া হয়নি বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আ স ম হান্নান শাহ।

মঙ্গলবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাব মিলনায়তনে অপরাজেয় বাংলাদেশ আয়োজিত ‘আতঙ্কের জনপদ বাংলাদেশ- শান্তি প্রতিষ্ঠায় জনতার করণীয়’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য একথা বলেন তিনি।

হান্নান শাহ বলেন, ‘পূর্বে রায়গুলো নিয়েও দেশে অনেক রক্তপাত হয়েছে। নিজামীর রায় দিলে হরতাল হতে পারে এই আশঙ্কায় সরকার রায় দিচ্ছে না। রায় কেন হলো না। ‘র’ এর এজেন্ট থেকে খবর এসেছে রায় দেয়া যাবে না। ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ বাংলাদেশে আসছেন। এর মধ্যেই যদি এই রায়টি ঘোষণা করা হয় তাহলে সারা দেশে নতুন করে সংঘর্ষ তৈরি হবে। এতে করে সরকারের ভাবমূর্তি পার্শ্ববর্তী দেশের কাছে নষ্ট হবে। এ জন্যই এ রায় দেয়া হয়নি।’

বিএনপির এই শীর্ষ নেতা বলেন, ‘সংলাপের বিষয়ে বিএনপির উচিৎ হবে না সরকারের কাছে এগিয়ে যাওয়া। বরং জোরালো আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। যাতে সংলাপের জন্য তারাই বিএনপির কাছে দৌড়ে আসে।’
‘আন্দোলন করতে পারলে হাসিনা বেগম জিয়ার কাছে দৌড়ে আসবেন। বেগম জিয়ার নেতৃত্বে আমরা জনগণকে সঙ্গে নিয়ে সে রকম আন্দোলন করবো।’

সরকারের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘সময় থাকতে সঠিক কাজটি করুন। অন্যথায় আপনাদের ভুলের মাসুল আপনাদেরকেই দিতে হবে।’

সরকারের সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘সরকার কোনো দল নয়। জনগণের প্রত্যক্ষ ভোটে সরকার নির্বাচিত হয়। ৫ জানুয়ারি নির্বাচনে জনগণ ভোট দেয়নি। তাই এটাকে নির্বাচন বলা যায় না। এটা একটা অবৈধ সরকার। তারা দেশ ও জনগণের কাজ করে না। তারা নির্যাতন করতে ব্যস্ত।’

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি ফরিদা মনি শহীদুল্লাহর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন- পেশাজীবী পরিষদের আহবায়ক রুহুল আমিন গাজী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. সুকমল বড়ুয়া, বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য ইসমাইল হোসেন বেঙ্গল, মেজর (অব.) মো. হানিফ প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই