মেইন ম্যেনু

দিনাজপুরের খবর (২১/৭/১৪)

## বিরামপুরে ট্রেনের নিচে ফেলে প্রেমিকাকে হত্যাঃ প্রেমিক উধাও
দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি :বিরামপুর উপজেলার মৌপুকুরে ট্রেনের নিচে ধাক্কা দিয়ে প্রেমিকাকে হত্যার পর প্রেমিক ও পিতা-মাতা উধাও হয়েছে।মামলা সূত্রে প্রকাশ, বিরামপুর চকপাড়ার (প্রফেসরপাড়া) হবিবর রহমানের কন্যা আয়শা সিদ্দিকা হাসি এবার বিরামপুর ডিগ্রি কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা দিয়েছে। কলেজে পড়ার সময় বিরামপুর পূর্বজগন্নাথপুর (বসুন্ধরা) মহল্লার মজনুর রহমানের পুত্র রানা হাসির সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। বিষয়টি জানাজানির পর হাসির পিতা রানার পিতা মাতার কাছে বিয়ে প্রস্তাব দিলে তারা প্রত্যাখান করে হুমকী দেন। গত ৭ জুলাই প্রেমিক রানা প্রেমিকা হাসিকে মোটর সাইকেলে নিয়ে প্রায় ৪ কিঃ মিঃ দূরে মৌপুকুর রেল লাইনের উপর হাঁটতে থাকে। রানা বিকেল ৪টার দিকে ফুলবাড়ি থেকে বিরামপুর গামী একটি মালবাহী ট্রেনের নিচে হাসিকে ধাক্কা মেরে ফেলে দেয়। এসময় রানা বলে যে, তোমার পিতা আমার বাড়িতে কোন সাহসে বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছে, তাই তোমার বেঁচে থাকার কোন অধিকার নেই। ট্রেনের ধাক্কায় হাসির হাত, পা ভেঙ্গে যায় এবং মাথায় গুরুত্বর জখম হয়।
প্রত্যক্ষদর্শীরা হাসির পিতাকে সংবাদ দিলে হাসিকে উদ্ধার করে বিরামপুর হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসার পর দিনাজপুর হাসপাতালে নেয়া হয়। দিনাজপুর যাওয়ার পথে হাসি তার পিতা হবিবর, ড্রাইভার কামাল ও সহযাত্রীদের বলে, “রানা আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যে ধাক্কা মেরে ট্রেনের নিচে ফেলে দিয়েছে”। বাঁচার অনেক আকুতি জানালেও ওই দিন রাত সাড়ে আটটার দিকে দিনাজপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে হাসির মৃত্যু ঘটে। এঘটনায় রানা, তার পিতা মজনুর রহমান ও মাতা রুবিকে আসামী করে হাসির পিতা পার্বতীপুর জিআরপি থানায় ১২ জুলাই হত্যা মামলা করেছেন। ঘটনার পর ওই তিনজন বাড়িঘর ছেড়ে উধাও হয়েছেন।
রবিবার (২০ জুলাই) মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও পার্বতীপুর জিআরপি থানার ওসি ইসরাইল হোসেন জানান, ঘটনার বিষয়ে তদন্ত চলছে এবং আসামী ধরার জোর প্রচেষ্টা চলছে।

## ঈদে ৫ দিন বন্ধের কবলে হিলি স্থলবন্দর
দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি :ঈদ উপলক্ষে হাকিমপুরের হিলি স্থল বন্দর ৫ দিন বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে। বাংলাহিলি কাস্টমস্ সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েশনের সিদ্ধান্ত মোতাবেক আগামী ২৭ জুলাই হইতে ১ আগষ্ট পর্যন্ত স্থল বন্দর বন্ধের এই ঘোষনা দেয়া হয়।
এমসয় বন্দর পথে ভারতের সঙ্গে আমদানী রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ থাকবে এবং ২ আগষ্ট এর কার্যক্রম স্বাভাবিক হবে।
বাংলাহিলি কাস্টমস্ সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আ. রহমান লিটন স্বাক্ষরিত এক পত্রে যানা যায়, গত ১৫ জুলাই অনুষ্ঠিত সংগঠনটির কার্যকরি কমিটির মাসিক সভায় এই সিদ্ধান্তটি গৃহীত হয়। এবং গ্রহীত সিদ্ধান্তের আলোকে বৃহস্পতিবার স্থল বন্দরটির বিপরীতে অবস্থিত ভারত হিলি স্থলবন্দর এক্্রপোটার্স অ্যান্ড কাষ্টমস্ ক্লিয়ারিং এজেন্টস্ এসোসিয়েশনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নিকট প্রেরিত এক পত্রের মাধ্যমে বিষয়টি অবগত করা হয়।

## বিরামপুরে নদীতে ডুবে গৃহবধুর মৃত্যু
দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি :শনিবার দুপুরে দিনাজপুর জেলার বিরামপুর উপজেলার শাখা যমুনা নদীতে ডুবে রুজিনা (৩৮) নামে এক গৃহ বধুর মৃত্যু হয়েছে।রুজিনা উপজেলার কাটলা বাজারে দঃ রামচন্দ্রপুর গ্রামের ফয়েজউদ্দিন (৪৮) এর স্ত্রী।
মৃত্যু রোজিনার স্বামী ফয়েজ উদ্দিন জানান,দুপুরে রেজিনা ও তার মেয়ে নদীতে গোসল করতে যায়। রেজিনা নদীতে ডুব দিয়ে আর না উঠায় তার মেয়ে চিৎকার করতে থাকে। মেয়ের চিৎকার শুনেস্থায়ী লোক জন নদীতে খোজাখুজির পর তার লাশ পাওয়া যায়।

## ৪০বিজিরি ৮২৬ ফেন্সিডিলসহ ভারতীয় পণ্য আটক
দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি :দিনাজপুর জেলার ফুলবাড়ী ৪০ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের অধীনস্থ বিরামপুর বিশেষ ক্যাম্পের বিজিবি ও ব্যাটালিয়নের টহল বিজিবি অভিযান চালিয়ে ৮২৬ বোতল ভাতীয় ফেন্সিডিলসহ ভারতীয় পণ্য আটক করেছে।
বিজিবি সুত্রে জানা যায়, শনিবার (১৯ জুলাই) রাত ২টায় বিরামপুর বিশেষ ক্যাম্পের টহল কমান্ডার হাবিলদার আব্বাস উদ্দিনের নেতৃত্বে বিজিবি বিরামপুর উপজেলার ভেলারপাড় নামক স্থানে ফেন্সিডিল চোরাচালানীরা ফেন্সিডিল পাচার করে নিয়ে যাওয়ার সময় বিজিবি ধাওয়া করে। এসময় ফেন্সিডিল চোরাচালানীরা বিজিবি ধাওয়া খেয়ে ৭টি ফেন্সিডিল ভর্তি কাটুন ফেলে পালিয়ে যায়। বিজিবি ঐ ৭টি কার্টুন থেকে ৬৩০ বোতল ফেন্সিডিল আটক করে।
এছাড়াও ফুলবাড়ী ৪০ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের টহল বিজিবি নবাবগঞ্জ উপজেলার দলারদরগা, বিরামপুর ও ফুলবাড়ী রেল ষ্টেশনে অভিযান চালিয়ে ১৯৬ বোতল ফেন্সিডিল, ৮ বোতল বিদেশী মদ, ১৪ লিটার দেশী মদ, ৬৬পিচ শাড়ী,১৪টি শার্ট পিচ, ১২ কেজি বেদেনা ফল, ৮ কেজি কিচমিচ, ৩৫ কেজি জিরা,৭৮৫ প্যাকেট আতশ বাজি, ৫২টি ইমিটেশন সামগ্রী,৫২টি ষ্টীল সামগ্রী আটক করে।
এবিষয়ে, ফুলবাড়ী ৪০ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের অধিনায়(সিও) লেঃ কর্ণেল জাহিদুর রশিদ আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে তিনি জানান, চোরাচারালী ও মদক দ্রব্য পাচারকারীদের কোন ক্রোমেই ছাড় দেওয়া হবে না। চোরাচারালী ও মদক দ্রব্য পাচার প্রতিরোধে আমি আমার অধীনস্থ সকল বিজিবিকে সর্তকতার সহিত দায়িত্ব পালনের নির্দেশ দিয়েছি। বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) মমিনূল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন।

## ঘোড়াঘাটে স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা, স্বামী শ্বাশুরী সহ ৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা
দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি :দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে শাপলা বেগম (২১) নামে এক গৃহবধুকে যৌতুকের জন্য পিটিয়ে হত্যা করেছে স্বামী এবং শাশুরী। শুক্রবার রাতে ঘোড়াঘাট উপজেলার চকবামুনিয়া বিশ্বনাথপুর (ওসমানপুর) উপজেলা সদর থেকে মাত্র ৫০ গজ দুরে এ ঘটনা ঘটে। নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য দিনাজপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
পারিবারিক সুত্রে জনাগেছে, প্রায় সাড়ে ৩ বছর আগে নবাবগঞ্জ উপজেলার ভাদুরিয়ার সাকোপাড়া গ্রামের আঃ সালামের কন্যা শাপলার বিয়ে হয় দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলার চকবামুনিয়া বিশ্বনাথপুর (ওসমানপুর) গ্রামের ডাঃ এমাজ উদ্দিনের ছেলে হোটেল ব্যবসায়ী মোঃ আশরাফুলে সাথে। বিয়ের সময় আশরাফুলকে যৌতুক হিসেবে ১ লাখ টাকা, একটি ডিসকভার ১৩৫ সিসি মোটর সাইকেলসহ মোট ৩ লাখ টাকার যৌতুক দেয়া হয়। কিন্তু, বিয়ের এক বছর পার হতে না হতেই, শাপলার উপর শুরু হয় অমানুসিক নির্যাতন ও মারধর। এক বছর আগে আশরাফুলকে আরো এক লাখ টাকা যৌতুক হিসেবে দেয়া হয়। কিন্তু তার পরেও বন্ধ হয়নি নির্যাতন। স্বামীর চাপের মুখে বাধ্য হয়ে গত সোমবার আবার এক লাখ টাকা মূল্যের দুই ভরি ওজনের স্বর্ণালংকার তার বাবার বাড়ীতে এনে দেয়। এক সপ্তাহ যেতে না যেতেই আশরাফুল আবার ১ লাখ টাকা আনার জন্য স্ত্রী শাপলাকে চাপ দেয়। তাতে শাপলা রাজি না হওয়ায় তাকে প্রচন্ড নির্যাতন করা হয়। নির্যাতন সইতে না পেরে সে [শাপলা] পাশ্ববর্তি গ্রামে তার খালার বাড়িতে আশ্রয় নেয়।
গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় সে তার স্বামীর বাড়িতে এলে, ইফতারের পূর্বে পাসন্ড স্বামী ও শাশুড়ী পিটিয়ে হত্যা করে লাশ গেটের বাইরে ফেলে রেখে স্বামী ও শ্বাশুরী বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়। প্রতিবেশীরা গৃহবধু শাপলাকে স্থানীয় ঘোড়াঘাট হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষনা করেন। শনিবার সকালে পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে।
এ ব্যাপারে মেয়ের বাবা আঃ ছালাম বাদী হয়ে শাপলার স্বামীসহ ৩ জনকে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করে।

## ফুলবাড়ীতে কৃষি মেলা উদ্ভোধন
দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি :দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে আজ শনিবার সকাল ১১ টায় উপজেলা পরিষোদ চত্তরে ,কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের উদ্যোগে মাস ব্যাপী কৃষি মেলা উদ্ভোধন হয়েছে।
প্রধান অতিথি হিসাবে কৃষি মেলা উদ্ভোধন করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য, প্রাথমিক ও গণ শিক্ষামন্ত্রী এ্যাড, মোস্তাফিজার রহমান ফিজার ।
কৃষি মেলা উদ্ভোধন উপলক্ষে মেলা চত্তরে আলোচনা সভা ও সুধি সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভা ও সুধি সমাবেশে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মনিরুজ্জামান এর সভাপতিত্বে অনান্যদের মধ্য বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি হায়দার আলী শাহ, সাধারন সম্পাদক মুশফিকুর রহমান বাবুল, সহকারী কমিশনার ভুমি এবিএম রওশন কবির, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জিয়াউল হক,ওসি ফুলবাড়ী থানা এবিএম রেজাউল ইসলাম, সমাজ সেবা কর্মকর্তা ময়নুল হক, এলুয়াড়ী ইউপি চেয়ারম্যান মওঃ নবীউল ইসলাম, বেতদিঘি ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আব্দুল কুদ্দুস, শিবনগর ইউপি চেয়ারম্যান হারুনুর রশিদ প্রমুখ। এছাড়া একই স্থানে ৫১০ জন বয়স্ক ও বিধবাকে বয়স্ক ও বিধবা ভাতার কাড প্রদান করেন। কৃষি মেলায় প্রায় শতাধিক প্রতিষ্ঠান ষ্টল প্রদর্শন করেন।



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই