মেইন ম্যেনু

কুয়েটের লোগো থেকে কুরআনের আয়াত তুলে দেয়া হলো

খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের লোগোতে পরিবর্তন আনা হয়েছে। পরিবর্তনে শুধু কুরআনের আয়াতাংশটুকু তুলে দেয়া হয়েছে। কুয়েটের জনসংযোগ কর্মকর্তা (চলতি দায়িত্ব) মনোজকুমার মজুমদার স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ পরিবর্তনের কথা জানানো হয়েছে। এ পরিবর্তনে অবশ্য অনেকে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।
৮ জুলাই প্রেরিত ভার্সিটির জনসংযোগ কর্মকর্তার বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, চলতি বছরের ২৬ জুন অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেটের ৪৭তম সভা বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোগ্রামটির পরিবর্তন অনুমোদন করেছে। পরিবর্তিত মনোগ্রামটি সংশ্লিষ্ট সবার ব্যবহারের জন্যে নিচে দেয়া হলো। এখন থেকে উপরোক্ত মনোগ্রামটি সকল েেত্র ব্যবহৃত হবে। পরিবর্তিত মনোগ্রামটির সফ্ট কপি জেপিজি (লঢ়ম) ফরম্যাটে সংযুক্ত করা হলো এবং প্রয়োজনে বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েব সাইটে পাওয়া যাবে। এতে পরিবর্তনের কোনো কারণ বলা হয়নি।

কুয়েট সূত্রে জানা গেছে, ২০০৩ সালের সেপ্টেম্বরে খুলনা বিআইটি বিশ্ববিদ্যালয়ে উন্নীত হয়। এরপর নভেম্বর মাসেই মনোগ্রাম তৈরির জন্যে প্রতিযোগিতা আহ্বান করা হয়। প্রাপ্ত মনোগ্রামগুলোর ভেতর থেকে কুরআনের আয়াতাংশ ‘রাব্বি জিদনি ইলমা’ ও তার বঙ্গানুবাদসংবলিত লোগোটি বাছাই কমিটি মনোনীত করে। ২০০৪ সালের প্রথম দিকে ভার্সিটি সিন্ডিকেট সেটি অনুমোদন করে। ১০ বছর পরে এসে সেখান থেকে আরবিতে লেখা কুরআনের আয়াতাংশটুকু শুধু বাদ দেয়া হলো।






মন্তব্য চালু নেই