মেইন ম্যেনু

কবে হবে বিএনপির ঢাকা মহানগর কমিটি

বিএনপির ঢাকা মহানগর কমিটির আহবায়কের পদ থেকে সাদেক হোসেন খোকা সরে যাওয়ার ঘোষণার পর থেকেই দলটির নেতাদের মধ্যে ঘুরে ফিরছে নানামুখী সমীকরণ।

নগর বিএনপির নতুন কমিটির বিষয়টি নিয়ে বিভিন্ন ধরনের গুঞ্জনও রয়েছে রাজনৈতিক মহলে। কখনও শোনা যায় পুরনোরাই থাকছেন নতুন কমিটিতে আবার কখনও শোনা যায় নতুন কমিটির দায়িত্ব তুলে দেয়া হবে নতুন হাতে।

সম্প্রতি বিভিন্ন ইফতার অনুষ্ঠানে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ঈদের পর সরকার পতনের আন্দোলনের ডাক দিয়ে দলের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হতে বলেছেন। ঈদ যতো ঘনিয়ে আসছে দলটির নেতাদের জন্য একরকমের শ্বাসরুদ্ধ পরিস্থিতির তৈরি হচ্ছে।

গত কদিন ধরেই শোনা যাচ্ছে খুব শিগগিরই নগরের নতুন কমিটি ঘোষণা করা হবে। বৃহস্পতিবার রাতে সেরকম আভাস মেলে দলটির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাদের ফেসবুক স্ট্যাটাসেও।

এরপর শুক্রবার বিভিন্ন গণমাধ্যমে ঢাকা মহানগর বিএনপির আহবায়ক কমিটি চূড়ান্ত হয়েছে- এমন সংবাদ প্রচারিত হলেও বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলছেন- এমন কোনো তথ্য আমার জানা নেই। আমি জানা মাত্রই আপনাদের জানিয়ে দেব।

এদিকে কমিটি চূড়ান্ত হয়েছে একটি সূত্র এমন দাবি করে বলছে- চেয়ারপারসন ওমরার উদ্দেশ্যে ঢাকা ছাড়ার পর এ সংক্রান্ত ঘোষণা আসতে পারে।

আবার নতুন কমিটির ধরন নিয়ে বিভিন্ন সূত্র বিভিন্ন কথা বলছে। একটি সূত্র মতে, স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসকে আহবায়ক এবং উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আব্দুল আউয়াল মিন্টুকে সদস্য সচিব করে নতুন কমিটি হতে পারে।

আবার অপর সূত্রে জানা গেছে, ঢাকা মহানগরীতে খোকার ১৭ বছর আর সালামের ১৩ বছরের পদচারণায় পারিবারিক বন্ধন সৃষ্টি হয়েছে। তাই তাদের বাদ দিয়ে নতুন কমিটি হতে পারে না। চেয়ারপারসন ঐক্যের ডাক দিয়েছেন তাই মির্জা আব্বাস, সাদেক হোসেন খোকা, আব্দুল আউয়াল মিন্টু, আব্দুস সালামের সমন্বয়ে নতুন কমিটি হতে পারে।

সূত্রমতে, সাদেক হোসেন খোকা এবং আব্দুস সালামকে ছাড়া নতুন কমিটি হলে নগর নেতাদের মধ্যে বিভেদ প্রকাশ্যে আসতে পারে।

দলের নেতাকর্মীরা অপেক্ষায় আছেন কবে আসছে নতুন কমিটি। নতুন নেতাদের দিয়ে নগর যন্ত্রণা উপশম হবে নাকি স্থায়ী রূপ লাভ করবে সেটাই এখন দেখার বিষয়।






মন্তব্য চালু নেই