মেইন ম্যেনু

আপাতত ইরাকে শ্রমিক পাঠানো বন্ধ

ইরাকে সংঘাতময় পরিস্থিতির উন্নতি না হওয়া পর্যন্ত দেশটিতে শ্রমিক পাঠানো বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এছাড়া ইরাকে অবস্থানরত বাংলাদেশিরা নিরাপদ আছে বলে জানানো হয়েছে।

শনিবার পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয় জানায়, ইরাকের শ্রম বাজারে যাওয়ার জন্য বেশ কিছু বাংলাদেশি শ্রমিক অপেক্ষায় রয়েছে। তবে দেশটির পরিস্থিতি ভাল না থাকায় আপাতত শ্রমিক পাঠানো বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

জানা যায়, ১৫ জুন বেশ কিছু বাংলাদেশি শ্রমিকের ইরাকে যাওয়ার কথা ছিল। ইউনিক ইস্টার্ন, ক্যারিয়ার ওভারসিস, রাজ ওভারসিস, ম্যানেজ পাওয়ার এই চারটি রিক্রুটিং এজেন্সির তাদের পাঠানোর কাজ করছে। তবে এ ঘোষণার পর সেটি বন্ধ থাকবে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানায়, দেশটিতে নিরাপদ এবং সুরক্ষিত পরিবেশ নিশ্চিত না হওয়া পর‌্যন্ত শ্রমিকদের পাঠানো স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এছাড়া ইরাকে অবস্থানরত প্রায় ১৪ হাজার বাংলাদেশিকে সতর্ক থাকার পাশাপাশি সংঘাতময় অঞ্চল থেকে দূরে থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

ইরাকে জঙ্গি হামলা ও কয়েকটি শহর দখলের ঘটনা বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে। রাজধানী ইতিমধ্যে ইরাকের সহিংসতা ও আল-কায়েদা হামলার আশঙ্কায় কোরিয়ান ও ফিনল্যান্ডের কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা ইরাক ছেড়ে গেছেন। বাগদাদ শহরের অদূরেই বিসমিয়াহ নিউ সিটি হাউজিং প্রকল্পে প্রায় পাঁচ হাজার বাংলাদেশি কর্মরত।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় আরো জানায়, ইরাক সরকার আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সমর্থনে সব রাজনৈতিক সংলাপের মাধ্যমে দেশটির পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে সক্ষম হবে বলে বাংলাদেশ আশা করে।






মন্তব্য চালু নেই