মেইন ম্যেনু

সৎ ভাইয়ের পিটুনি থেকে বাবাকে বাঁচাতে গিয়ে খুন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় সৎ ভাইয়ের পিটুনি থেকে বাবাকে বাঁচাতে গিয়ে রড ও লাঠির আঘাতে যুবকের মৃত্যু হয়েছে।

শনিবার সকালে উপজেলার দক্ষিণ ইউনিয়নের নুরপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সৎমা ও সৎভাইকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহতের নাম রুবেল (৩২)। তিনি আখাউড়া দক্ষিণ ইউনিয়নের নুরপুর পূর্বপাড়া গ্রামের মিলন মিয়ার ছেলে।

পুলিশ ও পরিবার সূত্রে জানা গেছে, নুরপুর পূর্বপাড়া গ্রামের মিলন মিয়ার সঙ্গে তার দ্বিতীয় স্ত্রীর ছেলে জহিরুল ইসলামের ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার টাকা নিয়ে বাকবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে জহিরুল তার বাবাকে মারতে থাকেন।

খবর পেয়ে রুবেল ঘটনাস্থলে গিয়ে বাবাকে বাঁচাতে গেলে সৎমা জরিনা, সৎভাই জহিরুল ও সৎবোন সোনিয়া তাকে রড ও লাঠি দিয়ে মারতে থাকেন।

স্থানীয়রা রুবেলকে উদ্ধার করে আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করে। অবস্থার অবনতি হলে ব্রাক্ষণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে এবং পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিকাল সাড়ে ৫টায় তার মৃত্যু হয়।

আখাউড়া থানার ওসি মোশারফ হোসেন তরফদার জানান, ময়নাতদন্তের জন্য নিহতের লাশ ব্রাক্ষণবাড়িয়া সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিহত রুবেলের সৎভাই জহিরুল ইসলাম ও সৎমা জরিনাকে আটক করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।






মন্তব্য চালু নেই