মেইন ম্যেনু

শেষ হাসি কার, দাদী না নাতনীর?

ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর বিশ্বকাপের উন্মাদনায় মত্ত ফুটবল সমর্থকরা। পিছিয়ে নেই দেশের রাজনৈতিক অঙ্গনের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি বা পরিবার। বিশ্বকাপ ফুটবলের আসর উপলক্ষে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের শীর্ষ নেতারা এক কাতারে যেমন শামিল হয়েছেন। তেমনি ছেলে-মেয়ে, স্বামী-স্ত্রী, ভাই-বোন, প্রেমিক-প্রেমিকা, বন্ধু-বান্ধবীরাও বিপরীত শিবিরের সমর্থক হিসেবে নিজেকে উপস্থাপন করছেন।

এবারের বিশ্বকাপ ফুটবলে স্বাগতিক ব্রাজিলের প্রতি সমর্থন রয়েছে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা, জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা বেগম রওশন এরশাদ এবং বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার।
বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নাতনী তারেক রহমানের বড় মেয়ে জাইমা রহমান আর্জেন্টিনার সমর্থক। বিপুল উৎসাহ উদ্দিপনা নিয়ে অন্যদের মতো সেও এবারের ফুটবল বিশ্বকাপ উপভোগ করছে।

জানা গেছে, তারেক রহমান, স্ত্রী জোবাইদা রহমান এবং আরাফাত রহমান কোকো দম্পতি ব্রাজিলের সমর্থক। তবে জিয়া পরিবারের পরবর্তী প্রজন্ম আর্জেন্টিনা সমর্থক।

আবার প্রতিদ্বন্দ্বী সমর্থনে রয়েছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর দম্পতি। ফুটবলের নান্দনিকতা বলতে মির্জা আলমগীর ব্রাজিলকে বুঝলেও তার স্ত্রী রাহাত আরা বেগমের ফেভারিট আর্জেন্টিনা।

জানা গেছে, রাহাত আরা বেগম মির্জা ফখরুল ইসলামের প্রতি চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়েছেন। ফুটবলের নান্দনিকতার জন্য মির্জা ফখরুলকে ব্রাজিলের সমর্থন ছেড়ে আর্জেন্টিনার দিকেই নাকি ঝুঁকতে হবে।






মন্তব্য চালু নেই