মেইন ম্যেনু

লতিফের এমপি পদ: স্পিকার এলে সিদ্ধান্ত

জাতীয় সংসদের চিফ হুইপ আ স ম ফিরোজ বলেছেন, ‘সদ্য অপসারিত ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী আব্দুল লতিফ সিদ্দিকীর সংসদ সদস্য পদ থাকা না থাকার বিষয়ে স্পিকার দেশে ফিরে এলেই সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। দলের সদস্যপদ হারানোর পরেও কারও সংসদ সদস্যপদ থাকতে পারে কি না এ বিষয়ে সংবিধানে স্পষ্ট কিছু উল্লেখ নেই। ফলে স্পিকার দেশের আইনজ্ঞদের সঙ্গে পরামর্শ নিয়ে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত জানাবেন।’
মঙ্গলবার জাতীয় সংসদের মিডিয়া সেন্টারে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি এসব বলেন। কমনওয়েলথ পার্লামেন্টারি অ্যাসোসিয়েশনের (সিপিএ) চেয়ারপারসন নির্বাচিত হওয়ায় স্পিকারকে সংবর্ধনা দেয়ার বিষয়ে এ ব্রিফিং অনুষ্ঠিত হয়।
চিফ হুইপ বলেন, ‘লতিফ সিদ্দিকী ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হেনে কথা বলেছেন। এজন্য তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। তবে সংবিধানে স্পষ্ট ব্যাখ্যা না থাকায় তার সংসদ সদস্য পদ নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত এখনই জানানো যাচ্ছে না।’
এদিকে সিপিএর চেয়ারপারসন নির্বাচিত হওয়ায় স্পিকারকে জাতীয় সংসদের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা দেয়া হবেও বলেও জানান তিনি। আগামী ২২ অক্টোবর জাতীয় সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় এ সংবর্ধনার আয়োজনের প্রস্তুতি নিচ্ছে সংসদ। অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন। সভাপতিত্ব করবেন ডেপুটি স্পিকার অ্যাডভোকেট ফজলে রাব্বী মিয়া।
ব্রিফিংয়ের আগে ডেপুটি স্পিকারের সভাপতিত্বে এ বিষয়ে প্রস্তুতিমূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়।
ব্রিফিংয়ে আরও উপস্থিত ছিলেন হুইপ ইকবালুর রহিম, আতিউর রহমান আতিক, মাহাবুব আরা গিনি, সংসদ সদস্য জাহিদ আহসান রাসেল প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই