মেইন ম্যেনু

ডিসিদের সতর্ক থাকার নির্দেশ

রায়ের দিন হরতাল দিচ্ছে না জামায়াত

দলের আমীর মাওলানা মতিউর রহমান নিজামীর রায়ের দিন হরতাল দিচ্ছে না বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী। তবে রায় দেখে টানা দুইদিনের হরতাল ডাকার পরিকল্পনা রয়েছে দলটির।
মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় আর্ন্তজাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১ মঙ্গলবার নিজামীর রায় ঘোষণা করবেন।
আর্ন্তজাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১ এর চেয়ারম্যান বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিমের নেতৃত্বে তিন সদস্যের ট্রাইব্যুনালে এ রায় ঘোষণা করা হবে। ট্রাইব্যুনালের অন্য দুই সদস্য হলেন বিচারপতি আনোয়ারুল হক ও বিচারপতি জাহাঙ্গীর হোসেন।
এর আগে গত ২৪ মার্চ মামলাটির যুক্তিতর্ক (আর্গুমেন্ট) উপস্থাপনের মাধ্যমে বিচারিক প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ায় রায় ঘোষণা অপেক্ষমান (সিএভি) রাখেন ট্রাইব্যুনাল।
এদিকে জামায়াত সূত্রে জানা গেছে, যুদ্ধাপরাধের মামলায় এর আগে জামায়াতের শীর্ষ পাঁচ নেতার রায়ের দিন হরতাল দিলেও এবার সিদ্ধান্তে পরিবর্তন এনেছে জামায়াত। মাওলানা নিজামী দলের আমীর হওয়ায় তার বিরুদ্ধে ট্রাইব্যুনাল কি ধরনের শাস্তি দেয় সেটা পর্যবেক্ষণের পর কর্মসূচির ঘোষণা দেয়া হবে। রায়ে যদি মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয় তাহলে তার প্রতিক্রিয়া হবে এক রকম। সেক্ষেত্রে রায় ঘোষণার পর নৈরাজ্য সৃষ্টি করে বুধ ও বৃহস্পতিবার টানা দুইদিন দেশব্যাপী হরতাল দেয়ার পরিকল্পনা আছে দলীয় সর্বোচ্চ নেতাদের।
দলটির কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদের এক সদস্য জানান, ট্রাইব্যুনাল ফাঁসি না দিয়ে যদি যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেন সেক্ষেত্রে দলটির নেতাকর্মীরা আরেক রকম প্রতিক্রিয়া দেখাবে।
প্রথমে রায় ঘোষণার দিনই এ হরতাল ঘোষণা দেয়ার পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু পরে এ চিন্তা থেকে সরে আসে জামায়াত। তবে রায় বিপক্ষে যাচ্ছে এমনটি ধরেই বুধবার ও বৃহস্পতিবার হরতাল দেয়ার কথা ভেবে রেখেছে দলটি। কার্যত দেশের সার্বিক রাজনৈতিক পরিস্থিতি, বর্ষাসহ সব বিষয় মিলিয়ে রায়ের দিন হরতালের চিন্তা থেকে সরে এসেছেন দলের নীতি নির্ধারকরা।
তবে সব কিছুই নির্ভর করছে বর্তমান পরিস্থিতিতে জামায়াতের সঙ্গে সরকার কি ধরনের আচরণ করছে।
এর আগে চট্টগ্রামে ১০ ট্রাক অস্ত্র মামলায় নিজামীকে ফাঁসি দেয়ার প্রতিবাদে চলতি বছরের ৬ ফেব্রুয়ারি সারাদেশে হরতাল দেয় জামায়াত।
জামায়াতের সাবেক আমির গোলাম আযম, সেক্রেটারি আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ, নায়েবে আমির দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী, সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল আব্দুল কাদের মোল্লা ও কামারুজ্জামানের রায়ের দিনও হরতালের ডাক দেয় দলটি। এমনকি কাদের মোল্লা ও সাঈদীর রায়ের আগে টানা হরতাল দিয়েছিল তারা।

## ডিসিদের সতর্ক থাকার নির্দেশ
দলীয় প্রধানের মানবতাবিরোধী মামলার রায়ে সরাদেশে জামায়াত-শিবির যাতে কোনো ধরনের নাশকতা ও বিশৃঙ্খলা করতে না পারে সে লক্ষ্যে সব জেলা প্রশাসককে (ডিসি) চিঠি দিয়ে সতর্ক থাকার নির্দেশ দিয়েছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।
মন্ত্রণালয়ের একটি সূত্র সোমবার রাতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। সন্ধ্যায় এ সংক্রান্ত চিঠি ডিসিদের পাঠানো হয়েছে বলে জানা গেছে।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে ওই সূত্র জানায়, জামায়াতে ইসলামীর আমির মতিউর রহমান নিজামীর মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলার রায় মঙ্গলবার দেয়া হবে। গোয়েন্দা সূত্রে খবর আছে এ রায়কে কেন্দ্র করে সারাদেশে জামায়াতে ইসলামী ও তাদের ছাত্র সংগঠন ইসলামী ছাত্রশিবির নাশকতা চালাতে পারে। তাদের এ অপতৎপরতা ঠেকাতে সব ডিসিদের পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে পত্রের মাধ্যমে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।
মঙ্গলবার ১৯৭১ সালের মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় নিজামীর বিরুদ্ধে রায় ঘোষণা করবেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১। নিজামীর বিরুদ্ধে মোট ১৬টি অভিযোগের ওপর যুক্তিতর্ক শেষে মামলাটি সর্বমোট তিনবার রায়ের অপেক্ষমাণ (সিএভি) রাখা হয়েছিল।
রাষ্ট্রপক্ষের অভিযোগপত্র অনুসারে নিজামীর বিরুদ্ধে ১৬টি অভিযোগে গঠন করা হয়। আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল আইনের ৩(২)(এ), ৩(২)(সি), ৩(২)(জি), ৩(২)(এইচ), ৪(১), ৪(২) ধারা অনুযায়ী মুক্তিযুদ্ধের সময় হত্যা, লুট, ধর্ষণ, উষ্কানি ও সহায়তা, পরিকল্পনা ও ষড়যন্ত্র এবং বুদ্ধিজীবী হত্যার উপর এসব অভিযোগ আনা হয়েছে। এছাড়াও এ আইনের ৪(১) ও ৪(২) ধারায় অনুযায়ী বুদ্ধিজীবী হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতা ও সুপিরিয়র রিসপনসিবিলিটির (ঊর্ধ্বতন নেতৃত্বের দায়) অভিযোগ রয়েছে নিজামীর বিরুদ্ধে।



(পরের সংবাদ) »



মন্তব্য চালু নেই