মেইন ম্যেনু

রজাপতি মেসি, বোল্ট মেসি?

এ বছর খেলার মাঠে লিওনেল মেসির ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন- অহেতুক কিংবা হুজুগে কোনো বিষয় নয়।
এই মৌসুমের শুরু থেকেই শ্লথ ভাবে খেলা শুরু করতে দেখা গেছে এমএলটেনকে। দেখা গেছে গ্যালারিতে উত্তেজনার পারদে ফুটছেন তার সমর্থকরা। টেনসনে স্নায়ুক্ষয় করছেন তার বার্সা সতীর্থরাও। কিন্তু সেই সময় অলসভাবে ইতিউতি করছেন ফুটবলের ক্ষুদে যাদুকর। অবশ্য মেসির পায়ে বল গেলে পরিস্থিতির বদল হয়েছে। তখন প্রজাপতি থেকে এক মুহূর্তেই স্প্রিন্টার ‘উসাইন বোল্টে’ পরিণত হয়েছেন তিনি!
এই মৌসুমে মাঠের খেলায় বার্সার খেলোয়াড়দের পারফরম্যান্স বিবেচনায় দেখা গেছে প্রত্যেক ম্যাচে গড়ে ৮ কিলোমিটার দৌঁড়িয়েছেন মেসি। যা কাতালন ক্লাবটির সর্বোচ্চ পারফরমার জর্ডি আলবার চেয়ে ৩.৫ কিলোমিটার কম। বার্সার স্প্যানিশ ফুলব্যাক প্রত্যেকম্যাচে গড়ে ১১.৫ কিলোমিটার কাভার করেছেন।
কিন্তু একটি ক্ষেত্রে বার্সার সবাই মেসির কাছে পরাস্ত। বল পেলেই গতিদানব হয়ে উঠেছেন মেসি। নিমিষেই প্রতিপক্ষ মার্কারদের ছিটকে ফেলে ডিফেন্স ভেঙেছেন। লা লিগায় এলচের বিপক্ষে ম্যাচে যেমন ৩৪. ৪৭ কিলোমিটার গতিতে দৌঁড়িয়েছেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। যা বার্সার হয়ে মৌসুমের সবচেয়ে দ্রুততম। তাছাড়া মেসিকে অলস বলা আরো একটি কারণে অন্যার্যহবে।
কী সেটা? তা হলো, লক্ষ্যহীনভাবে না দৌঁড়িয়েও ৭৫ শতাংশ ক্ষেত্রে বার্সার গোল অচলাবস্থা ভেঙেছেন চারবারের ফিফা বর্ষসেরা ফুটবলারই। আর মৌসুমে ইতোমধ্যেই লা লিগার দ্বিতীয় সর্বোচ্চ চ্যাম্পিয়নদের হয়ে ২৩টি গোলও তুলে নিয়েছেন।






মন্তব্য চালু নেই