মেইন ম্যেনু

যেভাবে বুঝবেন জীবন সঙ্গী প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার জন্য পাগল?

পৃথিবীতে এমন অনেক মানুষ আছেন, যারা একটা সম্পর্কে জড়িয়েও অতীত সম্পর্ককে ভুলতে পারেন না। আবার অনেকে আছেন কারো সাথে ব্রেক আপের পর অন্য কারো সাথে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন, কিন্তু মনের মাঝে লালন করেন অতীতের প্রেমিক বা প্রেমিকার জন্য ভালোবাসা। অনেকে বিয়ের পরও এই মোহ থেকে বের হয়ে আসতে পারেন না।

এখন প্রশ্ন হচ্ছে, কীভাবে আপনি বুঝবেন যে আপনার জীবন সঙ্গী কিংবা মনের মানুষটি আজও তার প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার জন্য পাগল এবং তার কাছ থেকে একটু সাড়া পেলেই আপনাকে ছেড়ে চলে যাবেন? আছে কিছু নিশ্চিত লক্ষণ। জেনে নিন আপনার জীবন সঙ্গী এখনো প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার জন্য পাগল?

# প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার সাথে সাধারণত কেউ যোগাযোগ রাখতে ভালোবাসেন না, বিশেষ করে যদি প্রাক্তন প্রেম তার সাথে প্রতারণা করে থাকে। কেউ যদি প্রতারিত হবার পরেও প্রাক্তন প্রেমের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করে চলেন, তবে বিষয়টি অবশ্যই ভেবে দেখার মত।

# তাঁদের ফেসবুকে যোগাযোগ আছে, এবং তিনি নিয়মিত তার সাথে চ্যাট করেন। প্রেম ভেঙে যাওয়ার পর ফেসবুকে বন্ধুত্ব থাকতেই পারে, কিন্তু প্রাক্তন প্রেমের সাথে নিয়মিত চ্যাট করা মোটেও ভালো লক্ষণ নয়।

# প্রাক্তন প্রেমের একটা ভালো ঘটনা বা শুভ সংবাদে কিংবা স্ট্যাটাসে লাইক দেয়া মোটেও খারাপ বিষয় নয়। কিন্তু যদি দেখেন যে আপনার সঙ্গী ক্রমাগত নিজের প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার ছবিতে লাইক দিচ্ছে ও সবখানেই অনাকাঙ্ক্ষিত কমেন্ট করে যাচ্ছেন, তাহলে বুঝবেন এখনো তার মনযোগের বিন্দুতে প্রাক্তন প্রেমই আছে।

# প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার সামনে তিনি আপনাকে পরিচয় করিয়ে দিতে লজ্জা পান বা আপনাদের সম্পর্কের কথা স্বীকার করে না? নিশ্চিত জেনে নিন যে তিনি এখনো প্রাক্তন মানুষটির সাথে সম্পর্ক করতে আগ্রহী।

# তিনি প্রায়ই প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার সাথে ফোনে কথা বলেন বা মেসেজ পাঠান। কিন্তু আপনার কাছ থেকে ব্যাপারটি গোপন করে রাখেন।

# প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার পরিবারের সাথে এখনো তার যোগাযোগ আছে, নানান পারিবারিক অনুষ্ঠানেও তিনি অংশ নেন। আপনি কিছু বললে বলেন তারা কেবল ভালো বন্ধু বা ভদ্রতার খাতিরে গিয়েছেন। ঝগড়া করেও বিষয়টা থেকে দূরে করা যায় না।

# তিনি প্রায়ই নিজের প্রাক্তন প্রেমের সাথে আপনাকে তুলনা করেন এবং সেটা নেগেটিভ ভাবে। এটা বলেন যে আগের মানুষটি আপনার চাইতে কত ভালো ছিল।

# যখনই আপনি জিজ্ঞেস করেন যে আগের মানুষটিকে তিনি ভুলতে পেরেছেন কিনা, ব্যাপারটি তিনি হেসেই উড়িয়ে দেন। কিন্তু এখনো তার কাছে প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার ছবি ও স্মৃতি চিহ্ন ইত্যাদি সব সযত্নে রাখা।

# কারণে-অকারণে তিনি প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেন। সব সময়েই কিছু না কিছু বাহানা তৈরি থাকে।

# প্রাক্তন প্রেমিক/প্রেমিকার জন্য আপনাদের প্রায়ই ঝগড়া হয়, কিন্তু তিনি কখনো ব্যাপারটি নিয়ে দুঃখ প্রকাশ করেন না বা কখনো সরে আসার চেষ্টা করেন না। বরং প্রায়ই আপনার সাথে ব্রেকআপের কথা বলেন।






মন্তব্য চালু নেই