মেইন ম্যেনু

মোদিকে হারিয়ে দিলেন সানি!

লড়াইয়ে হার হয়েছে প্রধানমন্ত্রীর৷স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন আসে কে সেই প্রতিপক্ষ? আজ্ঞে সানি লিওন৷ এই সময়ের বহু পুরুষের কাছে যৌনতার ‘এবিসিডি’ সানির কাছে গোহারা হেরেছেন নরেন্দ্র মোদি৷ কিন্তু লড়াইটা হলো কোথায়? পেশা কিংবা পদ সবেতেই দুজনের মধ্যে বিস্তর ফারাক৷নেপথ্যে রয়েছে গুগল ইন্ডিয়া৷ তাদেরই ‘মোস্ট সার্চড’ তারকার তালিকায় সবচেয়ে ওপরে উঠে এসেছে সানির নাম৷অন্যান্য তারকারা তালিকায় বহু নিচে থাকলেও প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কড়া প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে প্রথমে উঠে আসতে হয়েছে সানিকে৷কারণ বছরের মাঝামাঝি সময় পর্যন্ত মোদিই ছিলেন গুগলে সবচেয়ে বেশি সার্চড সেলেব্রিটি৷

সানি ম্যাজিক কিন্তু এখানেই থেমে থাকেনি৷সানি অভিনীত ‘রাগিণী এমএমএস ২’ও গুগলে সর্বাধিক সার্চড সিনেমাও বটে৷ তার কারণটাও অবশ্যই বেশ জোরালো৷ এই ছবিতে সানি একাধিকবার স্বল্পবসনা কিংবা সম্পূর্ণ নগ্ন অবস্থায় অন ক্যামেরা অভিনয় করেছেন৷সার্চড সিনেমার সানির ছবির পরেই রয়েছে ‘কিক’, ‘জয় হো’, ‘হ্যাপি নিউ ইয়ার’, ‘ব্যাং ব্যাং’ গুগলে সবথেকে বেশি সার্চ করা হয়৷যদিও বলিউডের অন্যান্য তারকার তুলনায় কেরিয়ারের পরিসংখ্যানে অনেকটাই পিছিয়ে রয়েছে সে৷ এই বছরে তার মাত্র একটিই ছবি ‘রাগিণী এমএমএস ২’৷তবুও তাতে যে আখেরে কিছুই আসে যায় না তা প্রমাণ করে দিয়েছেন প্রাক্তন পর্নস্টার সানি৷যদিও সানির এটাই প্রথম সাফল্য নয়৷ ২০১২ এবং ২০১৩তেও গুগলের বছর শেষের সমীক্ষা সানিকেই সেরা সার্চড সেলেব বলে চিহ্নিত করেছিল৷

গুগলে অন্যান্য যে বিষয়গুলি সবথেকে বেশি সার্চ করা হয়েছে সেগুলি যথাক্রমে সালমানের আদালতে উপস্থিতি এবং বিগ বসের সঞ্চালনা, শাহরুখ সালমানের ৬ বছরের ঝগড়া মিটল, সালমানের সঙ্গে প্রাক্তন সম্পর্ক অস্বীকার ক্যাটরিনার, দীপিকার বক্ষ বিভাজিকা নিয়ে বিতর্ক৷ ভারতের সবচেয়ে বেশি ডেকরেটেড অভিনেত্রী হিসেবে সার্চ করা হয়েছে প্রিয়াঙ্কা চোপড়াকে৷এরপর জায়গা পেয়েছে আলিয়ার মহিলাদের নিরাপত্তাবিষয়ক ভিডিও৷ নবম স্থানটি পেয়েছেন পুনম পান্ডে৷তবে তার সার্চের কারণটি কখনোই সিনেমা নয়৷২০১০ সালে দেশের বিশ্বকাপ জেতার বাজি ধরে নগ্ন হওয়ার চ্যালেঞ্জ ছুড়েছিলেন পুনম৷সেই সুবাদেই সার্চে উঠে এসেছে তার নাম৷

‘মোস্ট গুগল সার্চড’ সমীক্ষায় দশ নম্বর নাম ক্রিকেটার বিরাট কোহলির৷বলাই বাহুল্য খেলার থেকেও অভিনেত্রী আনুশকার সঙ্গে সম্পর্কের কারণেই মানুষের তার সম্পর্কে বেশি আগ্রহ ছিল৷- ওয়েবসাইট






মন্তব্য চালু নেই