মেইন ম্যেনু

বস্তি থেকে মাত্র আট বছর বয়সে অস্কারের লালগালিচায় খুদে তারকা

অস্কারের লালগালিচায় আলোকচিত্রীরা ওত পেতে থাকেন বড় বড় তারকাকে ফ্রেমবন্দী করার জন্য। টেলিভিশনের পর্দায় অগণিত দর্শকও পলকহীন দৃষ্টি নিয়ে থাকেন সেসব তারকার দিকেই। তাঁরা কী পরলেন, কীভাবে সাজলেন—সবই থাকে আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে।

কিন্তু এবার ৮৯তম একাডেমি অ্যাওয়ার্ড আসরে আগ্রহের মূলে চলে এসেছে পুঁচকে এক তারকা। তার নাম সানি পাওয়ার। অস্কারে ছয়টি বিভাগে মনোনয়ন পাওয়া ‘লায়ন’ ছবিতে সে অভিনেতা দেব প্যাটেলের শৈশবের চরিত্রে অভিনয় করেছে।

ভারতের মুম্বাইয়ের এক বস্তি থেকে মাত্র আট বছর বয়সে অস্কারের লালগালিচায় পা দিয়ে সানি সবাইকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে। তাক অবশ্য সে আরও আগেও একবার লাগিয়েছিল, যখন প্রায় দুই হাজার শিশুশিল্পীকে পেছনে ফেলে সানিই জিতে নেয় ‘লায়ন’ ছবির পরিচালক গার্থ ডেভিসের মন।

ছোট্ট সানি হিন্দি আর মারাঠি ছাড়া কোনো ভাষা পারে না। মায়ের তাই ভয় ছিল ইংরেজি ছবিতে ছেলে কীভাবে অভিনয় করবে? কিন্তু সেই ছেলেই দুর্দান্ত অভিনয় করে আজ দর্শকদের অবাক করে দিয়েছে। সবাই আরও বেশি অবাক হয়েছে অস্কারের মতো বড় আসরে তাঁর সাবলীল উপস্থিতি দেখে। এমন পরিবেশে গিয়ে একটুও ভড়কে না গিয়ে খুব সহজ ভঙ্গিতে উপস্থাপকের সব প্রশ্নের জবাব দিয়েছে সানি। ইন্টারনেটে এখন লালগালিচায় সানির সেই সাক্ষাৎকারের ভিডিও দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে।

এটি অবশ্য এই খুদে তারকার প্রথম কোনো পশ্চিমা অ্যাওয়ার্ড আসরে উপস্থিতি নয়। এর আগে সে এ বছরের জানুয়ারি মাসে গোল্ডেন গ্লোব অ্যাওয়ার্ডের লালগালিচাতেও দেব প্যাটেলের হাত ধরে হেঁটেছিল।

‘লায়ন’ ছবিতে অভিনয় করেছেন দেব প্যাটেল, নিকোল কিডম্যানসহ অনেকে। হিন্দুস্থান টাইমস।






মন্তব্য চালু নেই