মেইন ম্যেনু

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় আগুনে পুড়েছে একই পরিবারের ছয়জন

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় অগ্নিদগ্ধ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন একই পরিবারের ছয়জন। তাদের মধ্যে কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

শনিবার ভোরের দিকে ফতুল্লার বাড়ৈরভোগ নূর মসজিদ সংলগ্ন বাসাটিতে বিকট শব্দে একটি বিস্ফোরণের পর আগুন ধরে যায়।

অগ্নিদগ্ধরা হলেন- আজিজার রহমান (৬৫)। তার শরীরের ৬৫ শতাংশ পুড়ে গেছে। তবিরুন্নেসা (৫০)। তবিরুন্নেসার শরীরের ১৮ শতাংশ পুড়ে গেছে। তানিয়া (১৬)। তানিয়ার পুড়েছে ২২ শতাংশ। তন্নী (১২), তৌকিনূর (৯), মাহমুদা (৭)। এই তিন শিশুর পুড়েছে যথাক্রমে ২০, ২৭ ও ৩০ শতাংশ।

এরা সবাই বর্তমানে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

আজিজার রহমানের মেয়ে সুরভী জানান, ভোরের দিকে বিকট শব্দে একটি বিস্ফোরণের শব্দ শুনতে পান তিনি। এরপরই দেখেন ঘরে আগুন জ্বলছে।

চিকিৎসকরা বলেছেন, দগ্ধদের অনেকেরই শ্বাসনালী ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। যাদের শরীরের ২২ শতাংশের বেশি পুড়ে গেছে তাদের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

প্রতিবেশী রবিউল আউয়াল জানান, ওই বাসার লোকজনের চিৎকার শুনে আশপাশের লোকেরা ছুটে এসে পানি দিয়ে আগুন নিভিয়ে ফেলেন।

তিনি আরো জানান, প্রথমে দগ্ধদের স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাদের ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।






মন্তব্য চালু নেই