মেইন ম্যেনু

টাকার জন্য মাকে গলা কেটে হত্যা

নাটোরে হাওয়া বেগম (৪৫) নামে এক নারীকে গলা কেটে হত্যা করেছে তার ছেলে শিমুল আহমেদ। সদর উপজেলার তেলকুপি গ্রামে সোমবার সকাল ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর পালিয়ে যাওয়ার সময় গ্রামবাসী শিমুলকে আটক করে পুলিশে দেয়। নিহত হাওয়া বেগম ওই গ্রামের মমতাজ আলী প্রামানিকের স্ত্রী।

নাটোর সদর সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার আবু হাসনাত জানান, সকাল ১০টার দিকে হাওয়া বেগম রান্না ঘরে কাজ করছিলেন। এ সময় ছেলে শিমুল আহমেদ বাড়িতে ঢুকে টাকার জন্য মায়ের সঙ্গে ঝগড়া শুরু করেন। কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে রান্না ঘরে থাকা ধারালো বটি দিয়ে মাকে গলা কেটে হত্যা করেন। রক্তাক্ত অবস্থায় পালিয়ে যাওয়ার সময় স্থানীয়রা তাকে আটক করে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে শিমুলকে আটক করে থানায় নিয়ে যায় এবং লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নাটোর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।






মন্তব্য চালু নেই