মেইন ম্যেনু

ছেলের গলার নলি কেটে গলায় ফাঁস মায়ের

সাড়ে তিন বছরের ছেলেকে গলার নলি কেটে খুন। গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মঘাতী গৃহবধূ। আগরপাড়ার তারাপুকুরে বহুতলের ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার দুজনের দেহ। গ্রেফতার স্বামী। পুলিশসূত্রে খবর, সম্প্রতি স্বামী প্রিয় গোমসের সঙ্গে অশান্তি চরমে ওঠে পায়েল মণ্ডল গোমসের। গতকাল বিকেলে শিশুপুত্র অঙ্কুরকে গলার নলি কেটে খুন করে আত্মঘাতী হন পায়েল। তার আগে নিজের বাবা, মা ও দাদুকে এসএমএস করেন তিনি। এমন মর্মান্তিক ঘটনার ইঙ্গিত পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে ছুটে এসেছিলেন আত্মীয়-স্বজন। কিন্তু তার আগেই সন্তানকে খুন করে আত্মঘাতী হন পায়েল। পরিবারের অভিযোগ, স্বামীর অত্যাচার সহ্য করতে না পেরেই আত্মঘাতী হয়েছেন পায়েল। অভিযোগের ভিত্তিতে পায়েলের স্বামী বেসরকারি সংস্থার কর্মী প্রিয় গোমসকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

পুলিশি সূত্রের খবর, আগরপাড়ার তারাপুকুর এলাকার একটি ফ্ল্যাটে স্ত্রী পায়েল ও ছেলে অঙ্কুরকে নিয়ে থাকতেন সল্টলেকের এক বেসরকারি স্বাস্থ্য বিমা সংস্থার শাখা ম্যানেজার প্রিয় গোমস। সাড়ে চার বছর আগে কাঁচরাপাড়ার বাসিন্দা প্রফুল্ল মণ্ডলের মেয়ে পায়েলের সঙ্গে বিয়ে হয় কৃষ্ণনগরের বাসিন্দা প্রিয়র। তাঁরা আগরপাড়ার ফ্ল্যাটে আসেন শেষ আড়াই বছর আগে। পায়েলের বাপের বাড়ির লোকজন ও স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, বেশ কিছু দিন ধরেই স্ত্রীর সঙ্গে প্রিয়র ঝামেলা চলছিল। প্রফুল্লবাবু বলেন, ‘‘আমার মেয়ের উপরে শারীরিক ও মানসিক অত্যাচার চালাত প্রিয়। বারবার নানা ভাবে বুঝিয়েও লাভ হয়নি।’’






মন্তব্য চালু নেই