মেইন ম্যেনু

ক্রিকেটপ্রেমী প্রধানমন্ত্রী ও রুবেলের সেলফি !

দেশের মাটিতে বাংলাদেশের ম্যাচ। প্রতিপক্ষের বিপক্ষে টাইগারদের চার-ছয় কিংবা উইকেট নেওয়ার আনন্দে শিশুর মতো হাততালি দিয়ে উঠছেন একজন বিশেষ ব্যক্তি। আনন্দ মাত্রা ছাড়ালে কখনও চেয়ার ছেড়েও উঠে পড়ছেন।

ম্যাচ কাভার করা ক্যামেরাপারসনরাও বোধহয় ধন্দে পড়ে যান, মাঠে টাইগারদের জাদু দেখাবেন নাকি স্টেডিয়ামের ভিভিআইপি বক্সের এই বাঁধভাঙা হাসি!

১৬ কোটি মানুষের প্রতিনিধিত্বশীল এই হাসি আর কারও নয়, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার।

বাংলাদেশের খেলা হলেই শত ব্যস্ততার মাঝেও ১০ মিনিটের জন্য হলেও ঢু মারবেন স্টেডিয়াম পাড়ায়। আর না পারলে টেলিভিশন সেটের সামনে। কাজের সুবাদে সেটাও না পারলে সারাক্ষণই খোঁজ খবর রাখবেন। প্রধানমন্ত্রীর আশেপাশে যারা থাকেন তারাই জানিয়েছেন এ কথা।

সদ্যই ঘরোয়া সিরিজে পাকিস্তানকে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ম্যাচে বাংলাওয়াশের পর উচ্ছ্বসিত প্রধানমন্ত্রী শুক্রবার রাতে অধিনায়ক মাশরাফিকে যে মমতায় বুকে টেনে নিয়েছেন তা বিশ্ববাসী দেখেছে। সেখানেই শেষ নয় শনিবার (২৫ এপ্রিল) প্রধানমন্ত্রী গণভবনে টাইগারদের ডেকেছিলেন মধ্যাহ্নভোজে।

উদ্দেশ্য, দেশসেরা এ বীরদের সঙ্গে একটু বেশি সময় কাটানো।

প্রধানমন্ত্রীকে এত কাছ থেকে টাইগারদের আনন্দও ছিল দেখার মতো। এই সুযোগে তারা পেয়ে গেলেন প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সেলফি তোলার সূবর্ণ সুযোগ।

বিশ্বকাপ ক্রিকেটে যার বলের আঘাতে উড়ে যায় প্রতিপক্ষ, সেই রুবেলকেই দেখা যায় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সেলফিতে।

হাসি-আড্ডা, সেলফি সবই হলো কিন্তু সবচেয়ে নজরকাড়া যে ব্যাপারটি ছিলো, প্রধানমন্ত্রী বাম দিকের কাঁধের একটু নিচে লাগানো ব্যাট-বল আর স্ট্যাম্পের একটি স্মারক চিহ্ন। পরম মমতা আর ভালোবাসায় সেটি স্থান পেয়েছে তার কাছে। এই না হলে আমাদের ক্রিকেটপ্রেমী প্রধানমন্ত্রী!






মন্তব্য চালু নেই