মেইন ম্যেনু

সিংহের থাবায় কুমির কুপোকাত

আফ্রিকা মানেই পশুরাজ সিংহের রাজত্ব। বনের অন্যান্য পশু থেকে শুরু করে আফ্রিকার সাধারণ মানুষও ভয় পায় সিংহকে। কিন্তু প্রবাদে আছে, হাতি যখন গর্তে পড়ে, সবচেয়ে ছোট প্রাণীটাও তাকে ছাড়ে না। একই অবস্থা হয়েছে সিংহের ক্ষেত্রেও। আফ্রিকার দেশ কেনিয়ার সামবুরু নদীতে শিকার নিয়ে সিংহের সঙ্গে লড়াই বেঁধে যায় কুমিরের। তবে ঘণ্টা খানেকের এই লড়াইয়ে শেষমেষ হার মানতে বাধ্য হয় কুমির। কোনো মতে গভীর পানিতে ডুব দিয়ে প্রাণে রক্ষা পায় কুমির বেচারা।

আর এই দৃশ্য নিরাপদ দূরত্বে বসে ক্যামেরাবন্দী করেন ৫০ বছর বয়সী আলোকচিত্রী হাং তা। ধীরস্থিরভাবে পুরো দৃশ্যটি তিনি তুলে রাখেন তার ক্যামেরায়। আমি নিশ্চিত সিংহটি প্রথমে আক্রমন করতে চায়নি। কারণ তার সন্তানদের নিয়ে তার চিন্তা ছিল। কিন্তু চোখের সামনে থেকে খাবার চলে যাওয়ার মেনে নিতে পারছিল না সিংহটি। কুমিরের পায়ে এবং ঘাড়ে যখন সিংহের বিশাল থাবা পড়ছিল তখনই মূলত কুমিরটি রণে ভঙ্গ দেয়।

সিংহ এবং কুমিরের লড়াই বছরের পর বছর অপেক্ষা করেও পাঠক আপনি দেখতে পারবেন না। কারণ এই লড়াই দেখতে চাই নিতান্তই ভাগ্যের সহায়তা। সিংহ যেমন পানির কাছাকাছি যায় না, তেমনি কুমিরও পারতপক্ষে ডাঙার কোনো প্রাণীর সঙ্গে লড়াইয়ে যায় না। কিন্তু যখন প্রশ্ন ওঠে জীবনধারণের তখন ব্যতিক্রমতো ঘটেই। যেমনটা ঘটেছে এই সিংহ ও কুমিরের ক্ষেত্রে।






মন্তব্য চালু নেই