মেইন ম্যেনু

সাতক্ষীরার তালায় এক গৃহবধুকে ধর্ষণের পর কুপিয়ে হত্যা

এক গৃহবধুকে ধর্ষণের পর কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। রোববার রাত ১১টার দিকে সাতক্ষীরার তালা উপজেলার খলিলনগর ইউনিয়নের মাছিয়াড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহতের নাম লাভলী বেগম (৪০)। তিনি সাতক্ষীরার তালা উপজেলার মাছিয়াড়া গ্রামের আব্দুল হামিদ হাওলাদারের স্ত্রী। মৃতের স্বজনরা জানান, আব্দুল হামিদ মাদারীপুরের একটি ইটভাটায় কাজ করে। তার স্ত্রী লাভলী বেগমের সঙ্গে একই গ্রামের সাত্তার ফকিরের ছেলে কুদ্দুস ফকিরের দীর্ঘ দিনের অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে। রোববার রাত ১১ টার দিকে সে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিয়ে বাইরে বের হয়। এ সময় কয়েকজন দুর্বত্ত তার মুখে কাপড় বেঁধে নিয়ে যায়। সোমবার সকাল সাত টার দিকে মাছিয়াড়া গ্রামের ডাঃ রতন করের আম বাগানে তার ক্ষতবিক্ষত লাশ দেখতে পেয়ে গ্রামবাসি পুলিশে খবর দেয়।
তালা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু বক্কর ছিদ্দিক জানান, গৃহবধুর ঘাড়ে ও মুখে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপানোর চিহ্ন রয়েছে। পরকীয়া প্রেমের জের ধরে তাকে ধর্ষণের পর কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে পাঠানো হবে।



(পরের সংবাদ) »



মন্তব্য চালু নেই