মেইন ম্যেনু

চট্টগ্রামের রাউজানের কিছু খবর

শীতে সবুজ চাদরে ঢেকে গেছে চট্টগ্রামের রাউজান

চট্টগ্রাম রাউজানে সবুজ চাদরে ঢেকে গেছে উপজেলার পৌরসভার খাসখালের দু’পাড়। শুধু এই দু’ পাড় নয়, উপজেলার পৌরসভা ও ১৪ ইউনিয়নে বিস্তীর্ণ জমিতে এখন শীতকালীন শাক-সব্জির আবাদ করা হয়েছে। উপজেলর অন্যতম শীতকালিন সবজি আবাদে অন্যতম খাসখালের দু’পাড়ে আগাম সবজি উৎপাদনে কৃষকের মুখে হাসি ফুটেছে। খালের দু’পাড়ে ফ্রান্স বীম, ফুলকপি, বাধা কপি, বেগুন, মূলা, কাঁচা মরিচ, টমেটোসহ নানান ধরনের শাকসব্জির ক্ষেতে ভরে গেছে। প্রতিবছরের ন্যায় উপজেলায় আগাম শাখ সবজি বাজারে আসে এখান থেকে উৎপাদিত শাখ সবজি থেকেই। এখানে এবারও ভাল ফলন উৎপাদন হওয়ার প্রত্যাশা করেন উপজেলা কৃষি অফিস কর্মকর্তারা। সূত্রমতে রাউজান পৌরসভা এলাকার খাসখালের দু’পাড়ে ১৫/২০ হেক্টর জমিতে চাষাবাদ করে প্রকৃত ও মৌসুমি কৃষকরা। এতে যে শাখ সবজি উৎপাদন হয় তা রাউজানের চাহিদা পুরন করে চলে যায় চট্টগ্রাম নগরীসহ দেশের বিভিন্নস্থানে। এখানের পলিযুক্ত মাটি হওয়ায় চাষাবাদে ব্যাপক উৎপাদন হয়। যার কারনে প্রতিবছর চাষাবাদ করে প্রচুর লাভবান হয় কৃষক। এখানের অন্যতম উৎপাদিত ফসল হচ্ছে ফ্রান্সবিম (ফরাসসীম)। যেটি কৃষকরা ব্যবহার করে অধিক ফলন পাওয়া পাচ্ছে। এই চাষাবাদে পানি স্বল্পতাও নিবারন হয়। যার কারনে ফ্রান্সবীম ব্যবহার কৃষকদের মাঝে জনপ্রিয় হচ্ছে। এছাড়াও মুখঢাল, মাসকলাই ও সরিষার চাষ, ফুলকপি, বাধা কপি, বেগুন, মূলা, কাঁচা মরিচ, টমেটোসহ নানান ধরনের শাখশব্জির চাষবাদ হয়। অন্যদিকে এসব জমিতে পোকামাকর নিবারনে ইতমধ্য উপজেলা কৃষি অফিসের পক্ষ থেকে ধানে নারা (গোরা) জালিয়ে পুড়ানো হচ্ছে। বিষয়টি নিয়ে উপজেলা সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সিবু সংকর দে ও সৈকত বড়–য়া জানান, এখানে বিপুল পরিমান সবজির আবাদ হচ্ছে। ইতমধ্য অনেক কৃষক আগাম সবজি বাজারজাত করতে শুরু করেছে। উপজেলা সহকারী কর্মকর্তা সঞ্জয় কুমার চন্দন জানান, এখানে ১৫/২০ হেক্টর জমিতে বিভিন্ন ধরনের সবজির চাষাবাদ হয়। তবে ফ্রান্সবীমে উৎপাদন বেশি হওয়ায় কৃষকের মাঝে এ চাষে আগ্রহ বাড়ছে। যার দরুন এখানে ফ্রান্স বিমের চাষ ধরতে গেলে পৃথিবী বিক্ষাত হবে। উপজেলা সহকারী উদ্ভিদ কর্মকর্তা কাজী আতিকুর রহমান চৌধুরী বলেন, রাউজানের খাসখালের দু’পাড়ে চাষাবাদে পুরো উপজেলার জনসাধারনের চাহিদা মিটিয়ে চলে যাবে অন্যান্য উপজেলায়ও। বিষয়টি নিয়ে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো.নাছির উদ্দিন বলেন, এই জমিগুলোতে যে ভালভাবেই কৃষকরা চাষাবাদ করতে পারে সেই জন্য অফিসের পক্ষ থেকে সার্বিক সহযোগিতা ও পরামর্শ প্রদান করা হচ্ছে।

Raozan-jalnote picবিজয় মেলা থেকে জালনোট ব্যবসায়ী আটক:
চট্টগ্রাম রাউজান উপজেলার নোয়াপাড়া থেকে জাল নোটসহ দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল রাত ১২টার দিকে উপজেলার নোয়াপাড়া স্কুল মাঠে দক্ষিণ রাউজান মুক্তিযুদ্ধের বিজয় মেলা থেকে ৬টি এক হাজার টাকার জাল নোটসহ হাতেনাতে ২জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে নোয়াপাড়া পুলিশ ফাড়ীর ইনচার্জ টুটন মজুমদার বাদী হয়ে রাউজান থানায় একটি মামলা করেছে। আটককৃতরা হলেন, পটিয়া উপজেলার শিকলবাহা এলাকার উকিল নুর মুহাম্মদের বাড়ীর সালেহ জাফরের ছেলে নাজিম উদ্দিন (৩৫) ও একই উপজেলার দক্ষিণ হোলাইন আলী নেওয়াজ সারাং বাড়ীর আহমদ নবীর ছেলে জসিম (২৫)। পুলিশ জানায়, তাদের কাছ থেকে ৬টি এক হাজার টাকার জাল নোট জব্ধ করা হয়েছে। তারা পেশাদার জালনোট ব্যবসায়ী। সিন্ডিক্যাট করে তারা বিভিন্ন মেলা ও বাজারে জালনোট সরবরাহ করে প্রতারণা করে আসছে। থানার ওসি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন তাদের বিরুদ্ধে বিশেষ আইনে মামলা দেওয়া হয়েছে।

রাউজানবাসীর মিলন মেলা ও বার্ষিক বনভোজন বুধবার:
চট্টগ্রামের রাউজান উপজেলার সর্বস্তরের গণমানুষের মিলন মেলা ও রাউজানবাসীর বার্ষিক বনভোজন স্থানীয় সংসদের আহবানে অনুষ্ঠিত হবে। সর্বস্তরের জনসাধারণের মিলন মেলা ও বনভোজন উপজেলার বাগানস্থ মিনি স্টেডিয়ামে ২৪ ডিসেম্বর বুধবার সকাল ৯টা থেকে রাসাদিন ব্যাপি অনুষ্ঠিত হবে। উক্ত অনুষ্ঠাতে প্রধান অতিথি থাকার সদয় সম্মতি জ্ঞাপন করেছেন, রাউজান থেকে পরপর তিন তিন বার নির্বাচিত সাংসদ, উন্নয়নের কান্ডারী, রাউজানের রূপকার, মডেল ও গোলাপী রাউজানের কান্ডারী, গণপ্রজাতন্ত্রীক বাংলাদেশ সরকারে রেলপথ মন্ত্রণালয় স¤পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী এমপি। এই মহৎ অনুষ্ঠানটি উপজেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে আয়োজিত উক্ত অনুষ্ঠানে দশ হাজার মানুষের মধ্যাহ্ন ভোজের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। এতে দেশিয় শিল্পীদের নিয়ে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানসহ বিভিন্ন কর্মসূচি রয়েছে। উপজেলার সর্বস্তরের জনসাধারণকে অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকার জন্যে আয়োজক কমিটির পক্ষ থেকে অনুরোধ জানানো হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই