মেইন ম্যেনু

ভুল পরিচয়ের কারণে কত কোটি টাকার ক্ষতি!

কয়েক কোটি টাকার মালিক হওয়া আর না হওয়ার পার্থক্য কতটুকু? খুব বেশি না। একটা ‘প’ আর ‘ম’—এর পার্থক্য! অথবা, এভাবে দেখতে পারেন—একটা টুইটের পার্থক্য। অন্তত ভারতীয় ব্যাটসম্যান হারপ্রিত সিং আপনাকে তা-ই বলবেন।

নামের বিভ্রাটে পড়েই যে আইপিএলে কয়েক কোটি টাকার মালিক হওয়ার সুযোগটা হারাতে হলো ২৫ বছর বয়সী ব্যাটসম্যানকে। আইপিএলের নিলামে যেখানে তাঁর দাম ওঠার কথা ছিল কোটি টাকা, সেখানে হারমিত নামের অন্য একজনের সঙ্গে নামের বিভ্রাটে অবিক্রীতই রয়ে গেলেন হারপ্রিত। উল্টো তাঁর নাম জড়িয়ে গেল অপরাধের সঙ্গে।

ঝামেলাটা হয়েছে আইপিএলের নিলামের দিন। ভারতের ঘরোয়া রঞ্জি ট্রফিতে এবার ৮ ম্যাচে ৫৩৭ রান করেছেন হারপ্রিত—মধ্য প্রদেশের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক, আইপিএলে তাই তাঁকে নিয়ে কাড়াকাড়ি হবে বলেই ভেবেছিলেন অনেকে! কিন্তু নিলামের দিনই সকালে এক সংবাদমাধ্যমের টুইট এল, মুম্বাইয়ের আন্ধেরি স্টেশনের প্ল্যাটফর্মে গাড়ি চালানোয় ‘হারপ্রিত’কে গ্রেপ্তার করেছে মুম্বাই পুলিশ!

পরে জানা গেল, আসলে সংবাদমাধ্যমটি নামের বানানে ভুল করেছে। ‘প’ আর ‘ম’-এর তফাৎ। হারপ্রিত নয়, পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে হারমিত নামের একজনকে। হারমিতও ক্রিকেটার, ভারতের অনূর্ধ্ব-১৯ দলে খেলেন।

সঠিক তথ্য পরে জানা গেলেও ততক্ষণে কপাল ঠিকই পুড়েছে হারপ্রিতের। এর আগে পুনে ওয়ারিয়র্স ও কলকাতা নাইট রাইডার্সে খেলেছিলেন হারপ্রিত। কিন্তু এবার দলই পেলেন না। ‘অপরাধী’ একজন ক্রিকেটারকে নিলামে কেনেনি কোনো ফ্র্যাঞ্চাইজি।

কিন্তু কেনার ইচ্ছে যে ছিল, সেটি নিলামের পরে ঠিকই জানিয়েছেন এক ফ্র্যাঞ্চাইজি কর্মকর্তা, ‘আমরা ওকে কিনতে চেয়েছিলাম। কিন্তু যখন হারপ্রিতের গ্রেপ্তারের খবর এল, আমরা আর না কেনার সিদ্ধান্ত নিলাম। কারণ, এটা ফ্র্যাঞ্চাইজির ভাবমূর্তির জন্য খারাপ হবে। তবে পরে নিলাম যখন শেষ হয়ে গেল, তখন জানতে পারলাম, এটা আসলে হারমিত, হারপ্রিত নয়।’

তবে নামের বিভ্রাট পরে কেটে গেলেও নিজের ভাগ্যটা মেনে নিতে পারছিলেন না হারপ্রিত, ‘খুবই খারাপ লাগছে। আমার তো নামই খারাপ হয়ে গেল। সবাই ফোন করে বলছে, তুমি এটা কী করলে! আইপিএলের নিলামে আমাকে কেউ নেবে আশা করেছিলাম।

কিন্তু যখন আমার নাম এল, ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো নিশ্চয়ই ভেবেছে কেন থানায় থাকা কোনো ক্রিকেটারকে নেব! আইপিএল নিয়ে এখন আর ভাবছি না, ওটা শেষ! কিন্তু এখন আপনি আমার নাম গুগলে খুঁজলেও প্রথমে খবর আসবে আমি গ্রেপ্তার হয়েছিলাম।’

এবার অন্তত তিনজন ঘরোয়া ক্রিকেটার আইপিএলে কোটি টাকার দর হাঁকিয়েছেন। এ দেখে হারপ্রিতের আফসোস না বেড়ে পারেই না। ভুল পরিচয়ের কারণে তাঁর কত কোটি টাকার ক্ষতি হলো, কে জানে! সূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস, হিন্দুস্তান টাইমস।






মন্তব্য চালু নেই