মেইন ম্যেনু

বিতর্কিত পুলিশ কর্মকর্তাদের শাস্তি দাবি : বাদশা

রাজশাহী : সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহার এবং বিতর্কিত পুলিশ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে অবিলম্বে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা না হলে প্রয়োজনে রাস্তায় নেমে আন্দোলন করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজশাহী চেম্বার ভবনে সাংবাদিক ও রাজশাহী রক্ষা সংগ্রাম পরিষদসহ ব্যবসায়ী সংগঠনের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় রাজশাহী-২ (সদর) আসনের সাংসদ ও ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা এ ঘোষনা দেন।

সভায় উপস্থিত গণমাধ্যমকর্মী ও ব্যবসায়ী নেতারা রাজশাহী মহানগর পুলিশের কয়েকজন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে সাধারণ মানুষের পাশাপাশি সাংবাদিক এবং ব্যবসায়ীদের হয়রানি ও আটক বাণিজ্যের বিস্তর অভিযোগ তুলে ধরেন সাংসদ বাদশার কাছে।

এর মধ্যে রাজশাহীর জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক আনু মোস্তফাসহ তিন সাংবাদিকের নামে পুলিশের ষড়যন্ত্রমূলক নাশকতার মামলা, চাঁদা না দেওয়ায় ব্যবসায়ীদের আটক করে মিথ্যা মামলায় জড়ানো, ব্যবসায়ীদের কাছে চাঁদা দাবি, সাধারণ শিক্ষার্থীকে আটক করে হয়রানি ও বাণিজ্যসহ নানা অভিযোগ উঠে আসে।

হয়রানি ও বাণিজ্যের সঙ্গে জড়িত পুলিশের কয়েকজন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে সম্প্রতি রাজশাহী মহানগর পুলিশ কমিশনার শামসুদ্দিন যে অঙ্গীকার করেছিলেন, সেটি তিনি লঙ্ঘন করেছেন বলেও উল্লেখ করেন বক্তারা।

এর পরিপ্রেক্ষিতে প্রয়োজনে ওই সব পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়ে সংসদে বক্তব্য উপস্থাপন করতে সাংসদ বাদশার প্রতি আহ্বানও জানান সাংবাদিক ও ব্যবসায়ী নেতারা।

সাংবাদিক ও ব্যবসায়ী নেতাদের কাছ থেকে সব অভিযোগ শুনে সাংসদ বাদশা বলেন, হয়রানির সঙ্গে জড়িত পুলিশ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে অবশ্যই ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। এ ছাড়াও সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা দ্রুত প্রত্যাহার করে নিতে নগর পুলিশের প্রধানকে চাপ দেওয়া হবে। এটি করা না হলে প্রয়োজনে আমরা আন্দোলনে রাস্তায় নামবো। তবু এই ধরনের কর্মকা- হতে দেওয়া হবে না।

সভায় উপস্থিত ছিলেন, ভাষাসৈনিক আবুল হোসেন, লেখক ফজলুল হক, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল মান্নান, রাজশাহী চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজের সভাপতি মনিরুজ্জামান মনি, পরিচালক সেকেন্দার আলী, রাজশাহী রক্ষা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক জামাত খান, জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক আনু মোস্তফা, আনোয়ারুল আলম ফটিক, আবুল কালাম মুহাম্মদ আজাদ, মামুন অর রশিদ, তানজিমুল হক, বদরুল হাসান লিটন, রফিকুল ইসলাম, ফটোসাংবাদিক আজাহার উদ্দিন, আসাদুজ্জামান আসাদ প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই