মেইন ম্যেনু

নারীর অগ্রযাত্রায় প্রধান বাধা মৌলবাদী শক্তি: চুমকি

মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী বেগম মেহের আফরোজ চুমকি বলেছেন, বর্তমান সরকারের উদ্যোগে আজ বিভিন্ন ক্ষেত্রে নারীরা এগিয়ে চলছে। তবে নারীদের এই অগ্রযাত্রায় মৌলবাদী শক্তি প্রধান বাধা হিসেবে দেখা দিয়েছে।

মঙ্গলবার দশম জাতীয় সংসদের চতুর্থ অধিবেশনে প্রশ্নত্তোর পর্বে মহিলা আসন-২৮ এর সংসদ সদস্য বেগম আমাতুল কিবরিয়া কেয়া চৌধুরীর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, মৌলবাদী শক্তির অপব্যাখ্যার কারণেএখনো দেশের অনেক স্থানে সালিশ বিচারের নামে নারীরা বিভিন্নভাবে নির্যাতন ও নিগ্রহের শিকার হচ্ছে। সালিশ বিচারের নামে নারী নির্যাতন রোধ কল্পে মহিলা ও শিশু মন্ত্রনালয় মহিলা বিষয়ক অধিদফতরের জেলা ও উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তাদের মাধ্যমে সচেতনতামূলক কর্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে বলেও জানান তিনি।

মিসেস আমেনা আহমেদের এক প্রশ্নের উত্তরে প্রতিমন্ত্রী জানান, দেশে কর্মজীবী মহিলাদের জন্য মাত্র ৭টি কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল রয়েছে। এই সাতটি হোস্টেল হচ্ছে, নীলক্ষেত কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল, খিলগাঁও বেগম রোকেয়া কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল, মিরপুর নওয়াব ফয়জুন্নেসা কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল, চট্টগ্রাম কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল খুলনার বয়রা কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল, যশোর কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল এবং রাজশাহী কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল।

তিনি বলেন, ৬৪ জেলায় মহিলা বিষয়ক কার্যালয়ের কমপ্লেক্স নির্মাণ শিরোনামে একটি প্রকল্প বাস্তবায়নের পরিকল্পনা রয়েছে। যেকানে ৪৫ আসনের কর্মজীবী মহিলা হোস্টেল থাকবে।

তিনি বলেন, প্রথম পর্যায়ে ৫ টি জেলায় এই প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। এই জেলাগুলো হচ্ছে, গোপালগঞ্জ, ময়মনসিংহ, নড়াইল, দিনাজপুর এবং খুলনা। এছাড়া বরিশাল এবং সিলেট বিভাগীয় শহরেও এই প্রকল্পের আওতায় কমপ্লেক্স নির্মান ও মহিলা হোস্টেল নির্মান করা হবে।

এছাড়া সাভারের বড় আশুলিয়ায় গার্মেন্টস শ্রমিকদের আবাসনের জন্য একটি হোস্টেল নির্মানের প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী।






মন্তব্য চালু নেই