মেইন ম্যেনু

তাইজুলকে তারকা না বাননোর অনুরোধ মুশফিকের

বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের নিয়ে অনেকেরই অভিযোগ যে, তারা অল্পতেই সন্তুষ্ট। কয়েক ম্যাচে ভালো করলেই মিডিয়ার কল্যাণে দ্রুত তারকা হয়ে যান।

এরপর সেই ক্রিকেটার মিডিয়ায় নিয়মিত সাক্ষাৎকার, লাইভ টক শো ও বিজ্ঞাপণে হাজির হয়ে সাফল্যের সিঁড়ি বেয়ে দ্রুত ওপরে উঠতে থাকেন। ইলেকট্রনিক, প্রিন্ট অথবা অনলাইন মিডিয়ার সঙ্গে এখন নতুন করে যোগ হয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক, টুইটার ও ইন্সটাগ্রাম। মিডিয়া ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের কল্যাণে দ্রুত সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে যাচ্ছেন ।  এক সময়ে মাঠে খেলার থেকে বাইরের দিকগুলো নিয়ে বেশি চিন্তিত হয়ে পড়েন অনেকেই। মাঠের খেলায় যে এগুলোর প্রভাব পড়ে তা অনেকেই স্বীকার করেন না। তবে টাইগার দলপতি মুশফিকুর রহিম অকপটে স্বীকার না করলেও কিছুটা ইঙ্গিত দিয়েছেন।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ঢাকা টেস্ট জয়ের নায়ক তাইজুল ইসলামকে তারকা না বানানোর অনুরোধ করেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। সোমবার ম্যাচ শেষে সাংবাদিকদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে মুশফিকুর রহিম বলেন, ‘আপনাদের কাছে একটা অনুরোধ। তাইজুলের মতো পারফরম্যান্স বাংলাদেশ দলে অনেকেরই হয়ে থাকে । ও (তাইজুল) যেটা করেছে ভবিষ্যতেও ওর কাছ থেকে এটা আসবে। আপনাদের কাছে একটা অনুরোধ, কোনো তরুণ ক্রিকেটার ভালো করলে আপনারা এমন কিছু করবেন না, যাতে ওরা নিজেকে অনেক বড় ভাবতে শুরু করে। বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক হিসেবে আপনাদের কাছে আমার অনুরোধ এটি।’

মুশফিক আরো বলেন, ‘পারফরমেন্স করা একটা স্বাভাবিক বিষয়। এর জন্য আমরা পারিশ্রমিক পাই।  সুতরাং এটা  সাধারণ ব্যাপার আামাদের জন্য।’

পাশেই বসে থাকা তাইজুল ম্যাচ জয়ের পর নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করে বলেন, ‘খুব ভাল লাগছে। আমি প্রথম ইনিংসে খুব একটা ভাল করতে পারিনি। সামনে আমার আরো ভাল করতে হবে।’

তাইজুল জানান, বল হাতে ৮ উইকেট পাওয়ার থেকে চার মেরে দলকে জেতানোর মুহূর্তটা তার কাছে বেশি স্মরণীয় হয়ে থাকবে।






মন্তব্য চালু নেই