মেইন ম্যেনু

ছাত্রীদের টয়লেট থেকে মেয়েসহ ছাত্রলীগ কর্মী আটক

এবার ছাত্রীদের টয়লেটে এক বহিরাগত মেয়েসহ আপত্তিকর অবস্থায় আটক হয়েছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) শাখা ছাত্রলীগের এক কর্মী। মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে জহির রায়হান মিলনায়তনের মেয়েদের টয়লেটে এ ঘটনা ঘটে। কয়েকজন সাধারণ শিক্ষার্থী তাদেরকে আটক করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টরিয়াল বডির সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বহিরাগত এক মেয়েকে নিয়ে ছাত্রলীগ কর্মী প্রীতম আরিফ বিশ্ববিদ্যালয় জহির রায়হান মিলনায়তনে মেয়েদের টয়লেটে প্রবেশ করেন।

বিষয়টি জানাজানি হলে সাধারণ শিক্ষার্থীরা তাকে আপত্তিকর অবস্থায় আটক করে। পরে বিশ্ববিদ্যালয় সহকারী প্রক্টর ও প্রধান নিরাপত্তা কর্মকর্তা এসে তাদেরকে উদ্ধার করে। প্রধান নিরাপত্তা কর্মকর্তা জেফরুল হাসান চৌধুরী সজল বলেন, ‘দুই জনকে আটক করা হয়েছে। পরে তাদেরকে প্রক্টরের কাছে পাঠিয়েছি।’ আরিফকে ছাত্রলীগকর্মী দাবি করে মীর মশাররফ হোসেন হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আশফিক সরকার বলেন, ‘সে জুনিয়র কর্মী, এ জন্য তার সঙ্গে আমার সরাসরি পরিচয় নেই।’ আরিফ মেয়ে নিয়ে ধরা পড়েছে এমন কিছু জানেন কি না এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এ বিষয়ে আমি এখনো কিছু জানি না।’

এ বিষয়ে সহকারী প্রক্টর সিকদার মো: জুলকার নাইন বলেন, ‘এটি একটি সাধারণ বিষয়। ছেলেটি তার বহিরাগহত গালফ্রেন্ডকে নিয়ে টয়লেটে প্রবেশ করেছে। আমরা তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছি। বিষয়টি মেয়ের অভিভাবককে জানানো হয়েছে।’ উল্লেখ্য, এর কয়েকদিন আগে একই জায়গায় দর্শন বিভাগের ৩৯তম ব্যাচের এক ছাত্র মেয়েকে নিয়ে ছাত্রীদের টয়লেটে প্রবেশ করেন।






মন্তব্য চালু নেই