মেইন ম্যেনু

গ্রীষ্মকালে সবচেয়ে মজাদার ও আনন্দদায়ক স্থান

গ্রীষ্মকালের জন্য সবচেয়ে মজাদার ও আনন্দদায়ক স্থান হল জার্মানির এই ক্রান্তীয় দ্বীপ। এর বহিরাগত পুষ্পশোভিত এবং প্রানিজগত বিস্তীর্ণ। এতে রয়েছে স্বপ্নময় নীল উপহ্রদ ও জল স্লাইড। সাদা বালুকাময় সৈকত মানুষের প্রাণকে আরও প্রফুল্ল করে তোলে। এখানে, আড়ম্বরপূর্ণ বাসস্থান এবং এডভেঞ্চার পার্ক রয়েছে।

জার্মানির বার্লিন থেকে ৬০ কিলোমিটার দক্ষিণে একটি সাবেক সামরিক বিমান ঘাঁটির উপর এই ক্রান্তীয় দ্বীপটি অবস্থিত। এই গ্রীষ্মমণ্ডলীয় নিরালা বহুবছর ধরে আবিষ্কৃত হয়েছে। এখন, দ্বীপের এলাকাটি আরও সম্প্রসারণ করা হবে বলে ঘোষণা করা হয়েছে।

সাবেক এই বিমান ঘাঁটি ৩৬০ মিটার দীর্ঘ, ২১০ মিটার চওড়া এবং এর উচ্চতা ১০৭ মিটার। এই স্থানটি এতো বড় যে এখানে, স্ট্যাচু অফ লিবার্টি রাখার মত পূর্ণ স্থান রয়েছে। এছাড়াও, এখানে আটটি ফুটবল পিচ স্বাচ্ছন্দ্যে তৈরি করা যাবে।

যাই হোক, এখানে লেডি লিবার্টিকে রাখার কোন ব্যবস্থা করা হয়নি। ক্রান্তীয় দ্বীপ রিসোর্ট এ প্রসিদ্ধ সৈকত , নীল উপহ্রদ , একটি বন্য নদীর পানি, রেস্টুরেন্ট , ট্রপিকাল রেনফরেস্ট , গোলাপী flamingos এবং জলপ্রপাত দিয়ে পরিপূর্ণ করা হয়েছে।

এখানের তাপমাত্রা প্রায় সবসময় ২৬ ডিগ্রী সেলসিয়াস এবং এখানে খুব কম সময় আকাশ মেঘলা দেখা যায়। এ বছর দ্বীপটিকে আরও বিস্তৃত করা হচ্ছে। এর বহিরাঙ্গন একটি উন্মুক্ত ওয়াটার পার্ক, ঘন সবুজ লন এবং ৬০টি হলিডে হোমের মাধ্যমে প্রশস্ত করা হচ্ছে।

লন্ডন থেকে উড়োজাহাজের মাধ্যমে মাত্র ২ ঘণ্টার মধ্যে এ স্থানে পৌঁছান যায়। তাই, এর বিস্তীর্ণ সৌন্দর্য দেখার জন্য এখানে ঘুরে আসতে পারেন।

Untitled

সূত্র: মেট্রো।



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই