মেইন ম্যেনু

খালেদার আপিলের শুনানি ২৪ জুলাই

খালেদা জিয়ার জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের অর্থ আত্মসাতের দুই মামলায় বিচারিক আদালতে অভিযোগ গঠনকারী বিচারকের নিয়োগের বৈধতা বিষয়ে আপিলের শুনানি আগামী ২৪ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে।

সোমবার প্রধান বিচারপতি মো. মোজাম্মেল হোসেনের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের আপিল বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে খালেদার পক্ষে শুনানি করেন এজে মোহাম্মদ আলী। এছাড়া তার পক্ষে উপস্থিত ছিলেন ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, খন্দকার মাহবুব হোসেন, অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন প্রমুখ।

অপরদিকে রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

এর আগে গত ১৩ জুলাই খালেদা জিয়ার দুটি রিট খারিজ করে হাইকোর্টের দেয়া আদেশের বিরুদ্ধে করা আপিলের শুনানি মুলতবি করেন আদালত। এর মধ্যে মামলা দুটিতে অভিযোগ (চার্জ) গঠনের আদেশ বাতিল চেয়ে করা রিভিশনের শুনানির দিন ধার্য্য করা হয় ২৪ জুলাই।

আর বিচারিক আদালতে অভিযোগ গঠনকারী বিচারকের নিয়োগের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে করা রিট খারিজের বিরুদ্ধে আপিলের শুনানির দিন ২১ জুলাই ধার্য্য করা হয়।

নির্ধারিত দিন আজ সোমবার শুনানি শেষে প্রয়োজনীয় নথিপত্র নসা থাকায় সময় আবেদনের প্রেক্ষিতে আদালত তা মুলতবি করে ২৪ জুলাই দিন ধার্য্য করেন।

বিচারিক আদালতে অভিযোগ গঠনকারী বিচারকের নিয়োগের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে গত ১২ মে একটি রিট আবেদন দায়ের করেন খালেদা জিয়া। গত ১৯ জুন রিটটি খারিজ করে দেন বিচারপতি কাজী রেজা-উল হকের একক বেঞ্চ।

অন্যদিকে মামলা দুটিতে অভিযোগ (চার্জ) গঠনের আদেশ বাতিল চেয়ে গত ১৩ এপ্রিল হাইকোর্টে একটি রিভিশন আবেদন করেন খালেদা জিয়া। গত ২৩ এপ্রিল রিভিশন আবেদনটি খারিজ করে দেন বিচারপতি বোরহান উদ্দিন ও বিচারপতি কেএম কামরুল কাদেরের হাইকোর্ট বেঞ্চ। এ বিষয়ে করা আপিলের শুনানির ধার্য্য দিন ২৪ জুলাই।






মন্তব্য চালু নেই