মেইন ম্যেনু

অপহরণ নাটক সাজিয়ে ধরা খেলেন শিক্ষক

কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলায় পারিবারিক কলহের জের ধরে হাজী মাছিম উদ্দিন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নুরুল আফছার শহিদ নিজেই অপহরণ নাটক সাজিয়ে ধরা খেলেন। শনিবার বিকেলে পুলিশ তাকে আটক করে। ওই শিক্ষক উপজেলার বাহাদিয়া গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে।

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে বাড়ি থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন ওই শিক্ষক। ঘটনায় তার বড় ভাই নূর মোহাম্মদ শুক্রবার থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন।এদিকে শিক্ষক অপহরণ হয়েছে জানাজানি হলে পৌরসদরসহ পুরো উপজেলায় তৎপর হয় পুলিশ। শনিবার সকাল থেকে থানার ওসি জাকির রব্বানী, ওসি (তদন্ত) শামছুদ্দীন, এসআই মতিউর রহমান, এসআই ফিরোজের নেতৃত্বে পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পাশের গফরগাঁও উপজেলার রেলস্টেশন সংলগ্ন নিরাপদ আবাসিক হোটেলে অভিযান চালায়।

পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ওই শিক্ষক কৌশলে সেখান থেকে পালিয়ে যান। পরে বিকেলের দিকে পুলিশের ওই টিম টোক চানপুর ফেরিঘাট থেকে নুরুল আফছার শহিদকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। জিজ্ঞাসাবাদে ওই শিক্ষক সাজানো অপহরণের কথা স্বীকার করেন। এ ব্যাপারে পাকুন্দিয়া থানার ওসি মো. জাকির রব্বানী ঢাকাটাইমসকে বলেন, ওই শিক্ষক একাধিক বিয়ে করায় পারিবারিক কলহের জের ধরে নিজেই অপহরণ নাটক সাজান।






মন্তব্য চালু নেই