মেইন ম্যেনু

২১০ স্কুল বন্ধ রেখে প্রতিমন্ত্রীকে সংবর্ধনা!

খুলনার ডুমুরিয়ায় সব প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধ রেখে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দকে সংবর্ধনা দিয়েছেন শিক্ষকরা। ডুমুরিয়া উপজেলায় ২১০টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। সংবর্ধনা উপলক্ষে সবকটি বিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

শনিবার বেলা ১১টার দিকে ওই প্রতিমন্ত্রীকে সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে উপজেলা পরিষদ চত্বরে। এ সময় প্রতিমন্ত্রীকে শিক্ষকরা সাড়ে ছয় ভরি ওজনের রুপার নৌকাও উপহার দেন।
উপজেলা শিক্ষা কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কার্যালয়ের সমন্বয়ে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতি ও মন্ত্রীর কয়েকজন আস্থাভাজন শিক্ষকনেতার উদ্যোগে ওই সংবর্ধনার আয়োজন করা হয়।
ওই অনুষ্ঠান সফল করতে উপজেলার ২১০টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধ করে শিক্ষকদের সেখানে যেতে বলা হয়। ওই অনুষ্ঠানের সময় বিভিন্ন প্রাথমিক বিদ্যালয়ে তালা ঝুলতে দেখা যায়। এগুলোর মধ্যে, ডুমুরিয়া সদরের মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, গোলনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ভান্ডারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও গুটুদিয়া পশ্চিমপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সাজিয়াড়া বিদ্যালয়ে পড়ুয়া এক ছাত্রের বাবা জানান,  শনিবার প্রতিমন্ত্রীকে সংবর্ধনা দেয়ার জন্য বিদ্যালয় বন্ধ ছিল।
এ প্রসঙ্গে একজন প্রধান শিক্ষক বলেন, বছরে প্রধান শিক্ষকের তিন দিন বিদ্যালয় ছুটি দেয়ার ক্ষমতা আছে। সেভাবে বিদ্যালয়ে ছুটি দিয়ে আমরা এই অনুষ্ঠানে এসেছি। উপজেলা শিক্ষা কার্যালয়ের পরামর্শে বিদ্যালয়ে ছুটি দেয়া হয়েছে বলেও জানান আরেক শিক্ষক।
তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুকক প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির একজন সভাপতি  জানান, প্রধান শিক্ষক স্কুলে ছুটি দেয়ার ব্যাপারে আমাদের জানায়নি।
শিক্ষকদের অভিযোগ, বর্তমান ভারপ্রাপ্ত উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা ও মন্ত্রীর এক ভাতিজার উদ্যোগে এই সংবর্ধনা দেয়া হচ্ছে। মন্ত্রীর এ অনুষ্ঠানে যোগ না দিলে বিপদে পড়তে হতো বলে তাঁরা দাবি করেন। প্রতিমন্ত্রীর সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে শিক্ষকদের উপস্থিতি নিশ্চিত করার জন্য স্বাক্ষরও নেয়া হয়।





মন্তব্য চালু নেই