মেইন ম্যেনু

সাবধান! রোজ খাচ্ছেন এই খাবার! তাতেই মারাত্মক ভাবে বাড়ছে ক্যানসারের ভয়

এতদিন কী ভাবতেন— সাদা পাঁউরুটি, মুড়ি কিংবা কর্নফ্লেক্স খুব স্বাস্থ্যকর খাবার? সেই ভেবে রোজ নিয়ম করে খেতেন এই সব? তা হলে আর এক বার পুরো বিষয়টা ভাবুন।

কারণ ‘ক্যানসার এপিডেমোলজি, বাওমার্কার্স অ্যান্ড প্রিভেনশন’ নামের জার্নালে প্রকাশিত একটি গবেষণাত্র জানাচ্ছে, শুধু পাঁউরুটি, মুড়ি কিংবা কর্নফ্লেক্স নয়, হাই-গ্লিসামিক ইনডেক্স লেভেল সম্পন্ন যে কোনও খাবারই ফুসফুসের ক্যানসারের সম্ভাবনা অনেকখানি বৃদ্ধি করে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, হাই গ্লিসামিক ইনডেক্স হল কোনও খাবারের অন্তর্গত কার্বোহাইড্রেট রক্তে শর্করার মাত্রাকে কতখানি বাড়াচ্ছে, তা পরিমাপ করার মানদণ্ড।
গবেষকরা একটি সমীক্ষার ভিত্তিতে এই সিদ্ধান্তে পৌঁছেছেন। ১৯০৫ জন ক্যানসার রোগী, এবং ২৪১৩ জন ক্যানসার-মুক্ত মানুষকে এই সমীক্ষার অধীনে আনা হয়েছিল। সেই সমীক্ষায় দেখা যায়, যাঁদের দৈনন্দিন খাদ্যতালিকায় হাই-গ্লিসামিক খাদ্য রয়েছে, তাঁদের ফুসফুসের ক্যানসারের সম্ভাবনা ৪৯ শতাংশ বেড়ে যায়।

গবেষণাপত্রটির বরিষ্ঠ রচয়িতা, ডাক্তার জিফেং উ সংবাদমাধ্যমকে প্রদত্ত একটি বিবৃতিতে জানান, ‘কোনও দিন ধূমপান করেননি এমন মানুষকে কেন্দ্র করেই আমরা সমীক্ষা চালিয়েছিলাম। তাতে দেখা গিয়েছে, ধূমপান না করা, মদ্যপানের মাত্রা নিয়ন্ত্রিত রাখা, কিংবা নিয়মিত শরীরচর্চার মতো অভ্যেসের পাশাপাশি হাই-গ্লিসামিক খাবার খাওয়ার পরিমাণ কমানোও ক্যানসার-মুক্ত জীবনযাপনের একটা উপায় হিসেবে বিবেচিত হতে পারে।’

তা হলে কোন ধরনের খাবারগুলি বর্জন করতে হবে? গবেষণাপত্র জানাচ্ছে, সাদা পাঁউরুটি, সাদা আলু, মুড়ি (পাফড রাইস), মিষ্টি কিংবা কর্নফ্লেক্সের মতো খাবারকে এড়িয়ে চলাই ভাল। আর কোন ধরনের খাবার নিশ্চিন্তে খাওয়া যাবে? ডাক্তাররা বলছেন, ফল এবং শাকসবজির উপর নির্ভরতা বাড়াতে হবে। এ ছাড়া ব্রাউন রাইস, হোল গ্রেন ব্রেড, রোলড ওটস-এর মতো খাবারেও ফুসফুসের ক্যানসারের ভয় নেই বলে জানানো হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই