মেইন ম্যেনু

সাতক্ষীরা সংবাদ (৩০/৮/১৪)

## সাতক্ষীরায় ভূলে ভরা ও নিন্মমানের টেস্ট পেপার কিনতে বাধ্য করার অভিযোগ:
সাতক্ষীরা প্রতিনিধি ॥ দরগাপুর এস.কে.আর.এইচ. কলেজিয়েট স্কুলের ইংরেজি প্রভাষক তপন কুমার সরকারের বিরুদ্ধে মোটা অংকের আর্থিক সুবিধা গ্রহণ করে ভূলে ভরা ও নি¤œ মানের টেস্ট এ্যানালাইসিস এন্ড টেস্ট পেপার চালানোর অভিযোগ উঠেছে। সূত্রে জানা যায়, এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের জন্য বাজারে উন্নতমানের বিভিন্ন টেস্ট পেপার থাকলেও জধরংযধ নামে একটি ভূলে ভরা ও নি¤œ মানের ‘ ইংলিশ মডেল কোশ্চেন ১ম পত্র’ বই শিক্ষার্থীদের কিনতে বাধ্য করছেন প্রভাষক তপন কুমার সরকার। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক শিক্ষার্থী জানায়, আমরা বাজারের উন্নত মানের টেস্ট পেপার ২৭০ টাকায় কিনতে চাইলেও স্যার আমাদের এ নি¤œ মানের টেস্ট পেপার ৩০০/৩২০ টাকায় কিনতে বাধ্য করছেন। অভিভাবক মোঃ ছফিউল্লাহ জানান, “যে টেস্ট পেপারের শুরুতেই কভার পেজে টেস্ট এ্যানালাইসিস বানানটিও ভূল এবং বইটির ভিতরে দরগাপুর এস.কে.আর.এইচ. কলেজিয়েট স্কুলের নামসহ অসংখ্যা বানান ভূল রয়েছে। যা শিক্ষার্থীদের সৃজনশীল জ্ঞান অর্জনের পথে বাধাঁ হয়ে দাড়িয়েছে। এব্যাপারে উক্ত কলেজের প্রধান শিক্ষকসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করছি।” এব্যাপারে বাকা বাজারের গাজী লাইব্রেরীর মালিক বলেন, “দরগাপুর এস.কে.আর.এইচ. কলেজিয়েট স্কুলের ইংরেজি প্রভাষক তপন কুমার সরকারের কাছে এব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি বলেন, মানুষ ভুলের উর্দ্ধে নয়, সুতরাং বইতে ভূল থাকতেই পারে। তবে আর্থিক সুবিধা ও শিক্ষার্থীদের এ বই কিনতে বাধ্য করার বিষয়টি সঠিক নয়।” বাকা বাজারের ‘গাজী লাইব্রেরী’কে আর্থিক সুবিধা দিয়ে এ নি¤œ মানের বই বাজারজাত করা হচ্ছে বলে পুস্তক ব্যবসায়ীরা অভিযোগ করেন।

## সীমান্তে সিসি ক্যামেরা!:
অবৈধ অনুপ্রবেশ ঠেকাতে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ সাতক্ষীরা সীমান্তের বিপরীতে ভারত ভূখন্ডে উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন সিসি ক্যামেরা বসিয়ে পর্যবেক্ষণ শুরু করেছে। এছাড়া বাংলাদেশের দিকে কড়া নজরদারি রাখার জন্য সীমান্তের বিভিন্ন পয়েন্টে শক্তিশালী পর্যবেক্ষণ টাওয়ার বসানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। এই পর্যবেক্ষণ টাওয়ারের মাধ্যমে বাংলাদেশ অভ্যন্তরের বেশ কয়েক কিলেমিটার এলাকা জুড়ে গভীর পর্যবেক্ষণে রাখতে পারবে বিএসএফ।
সীমান্তের একাধিক নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা যায়, বাংলাদেশ থেকে সীমান্ত পথে জঙ্গি অনুপ্রবেশ, চোরাচালান ও যে কোন ধরণের অবৈধ অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বিএসএফ সাতক্ষীরা সীমান্তের বিপরীতে ভারত সীমান্তের বিভিন্ন পয়েন্টে উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন সিসি ক্যামেরা বসিয়েছে। সন্ধ্যায় সীমান্তের একটি নিরাপদ স্থানে গোপনে এই ক্যামেরা রেখে যায়। আবার সকালে তুলে নিয়ে যায়। সীমান্তের নিকটবর্তী ক্যাম্পে বসেই এই সিসি ক্যামেরার মাধ্যমে তদরকি করেছে বিএসএফ। সাতক্ষীরা সীমান্তের বিপরীতে ভারতের উত্তর ২৪ পরগনা জেলার গরজালা, গোবরদা, গড়েরকান্দা, হাকিমপুর, তারালী, আমুদিয়া, দুবলি, কৈজুরী, ঘোজাডাঙ্গা ও পানিতরসহ বিভিন্ন সীমান্ত এলাকায় এই সিসি ক্যামেরা বসানো হয়েছে।
এছাড়া বাংলাদেশ সীমান্তে নজরদারি বাড়াতে ভারত সীমান্তের বিভিন্ন স্থানে শক্তিশালী পর্যবেক্ষন টাওয়ার বসানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএসএফ। ইতিমধ্যে সাতক্ষীরার ভোমরা সীমান্তের বিপরীতে ভারতের ঘোজাডাঙ্গা এলকায় বিএসএফ ক্যাম্পের পাশে এমন একটি পর্যবেক্ষন টাওয়ার নির্মানের কার্যক্রম শুরু করেছে ভারত সরকার। ইতিমধ্যে সেখানে টাওয়ার নির্মানের জন্য ইট, বালু, খোয়াসহ অন্যান্য নির্মাণ সামগ্রী আনা হয়েছে বলে নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে। সীমান্তে এধরণের শক্তিশালী উচ্চ পর্যবেক্ষণ টাওয়ার স্থাপন করা হলে সেখান থেকে বাংলাদেশ অভ্যন্তরের বেশ কয়েক কিলেমিটার এলাকা জুড়ে গভীর পর্যবেক্ষণে রাখতে পারবে বিএসএফ। যা বাংলাদেশের আভ্যন্তরীণ বিষয়ের জন্য দারুণ হুমকি স্বরুপ।
বিজিবি’র যশোর এরিয়ার রিজিওনাল কর্মকর্তা এ বিষয়ে কিছু বলতে অপরগতা প্রকাশ করে ৩৮ বিজিবি’র অধিনায়কের সাথে কথা বলার পরামার্শ দেন। খুলনা সেক্টর কমান্ডার লে: কর্ণেল মিজানুর রহমান জানান, তিনি ছুটিতে আছেন। এ কারণে কিনি কিছু তথ্য দিতে পারছেন না।
এব্যাপারে জানার জন্য যোগাযোগ করা হলে সাতক্ষীরাস্থ বিজিবি ৩৮ ব্যাটালিয়নের অপারেশন অফিসার মেজর আহসান হাবিব বলেন, সম্প্রতি বিএসএফ সীমান্তে তাদের নজরদারি বৃদ্ধি করেছে। সীমান্তে সিসি ক্যামেরা বসানোর বিষয়টি আমরা শুনেছি। এবিষয় বিস্তারিত খোজ খবর নিয়ে পরে বিস্তারিত বলতে পারবো। সীমান্তে শক্তিশালী পর্যবেক্ষণ টাওয়ার বসানোর বিয়য়ে মন্তব্য করতে গিয়ে তিনি বলেন, এটি প্রতিবেশী রাষ্ট্রের প্রযুক্তিগত ব্যাপার। এবিষয় এই মুহুর্ত্বে আমাদের মন্তব্য করা ঠিক হবে না।

## সাতক্ষীরায় ভারতে পাচারের চেষ্টাকালে পাঁচ নারী উদ্ধার, তিন পাচারকারী আটক:
সাতক্ষীরায় ভারতে পাচারের চেষ্টাকালে পাঁচ নারীকে উদ্ধার ও তিন পাচারকারীকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে সদরের বৈচনা এলাকায় অবস্থিত কুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আসাদুল হকের বাগান বাড়ি থেকে তাদের আটক করা হয়।
আটক তিন পাচারকারী হলেন, সদর উপজেলার শ্রীরামপুর গ্রামের মোজাম্মেল হকের ছেলে জাকির হোসেন (৩৫), দেবহাটা উপজেলার কুলিয়া গ্রামের রুপচাদ বিশ্বাসের ছেলে আব্দুল গফফার (৫০) ও গোপালগঞ্জ জেলার আবুল বাসার মোল্লার ছেলে সাইফুল মোল্লা (২৪)। সাতক্ষীরা সদর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) নাসির উদ্দীন জানান, দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে ভারতে পাচারের উদ্দেশ্যে পাঁচ নারীকে বৈচনা এলাকার বাগান ওই বাড়িতে এনে রাখা হয়। গোপনে খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে অভিযান চালিয়ে তিন পাচারকারিকে আটক করে। সেখান থেকে উদ্ধার করা হয় পাঁচ নারীকে
উদ্ধার হওয়া নারীদের বেসরকারি সি.ডাব্লিউ.সি.এস নামের একটি সংগঠনের সেল্টার হোমে পাঠানো হয়েছে। আটক পাচারকারিদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

## বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতির ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত:
বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতি সাতক্ষীরা জেলা শাখা’র “অষ্টম ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন ২০১৪” অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার বেলা ১২টায় সাতক্ষীরা জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে জাতীয় শিক্ষানীতি’র পূর্ণাঙ্গ বাস্তবায়ন এবং আইএলও, ইউনেস্কো’র সুপারিশমালা অনুযায়ী সম-অভিজ্ঞতা, সম-যোগ্যতা, সম-দায়িত্বের ক্ষেত্রে বৈষম্যহীন নীতিমালা প্রনয়ণ ও শিক্ষকদের মার্যাদার দাবীকে যোক্তিক পরিণতিতে নেওয়ার প্রত্যয়ে এ সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দ এমপি। বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতি সাতক্ষীরা জেলা শাখা’র সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুর রহমানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা ১ আসনের সংসদ সদস্য এড. মুস্তফা লুৎফুল্লাহ, সদর ২ আসনের সংসদ সদস্য মীর মোস্তাক আহমেদ রবি, সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য মিসেস রিফাত আমীন, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট সৈয়দ রাশেদুল হাসান, প্রমুখ। সম্মেলনে প্রধান আলোচক হিসাবে বক্তব্য রাখেন বাকশিস কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারন সম্পাদক অধ্যক্ষ আসাদুল হক। সমগ্র অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতি সাতক্ষীরা জেলা শাখা’র সাধারন সম্পাদক এ.আর.এম মোবাশ্বেরুল হক জ্যোতি।

## জেলা আওয়ামীলীগের আলোচনা সভা ও শোক র‌্যালী:
সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামীলীগের আয়োজনে স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর ৩৯তম শাহাদত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালিত হয়েছে। শনিবার সকাল ১১টায় সাতক্ষীরা শহীদ আব্দুর রাজ্জাক পার্কে জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব ইঞ্জিনিয়ার শেখ মুজিবুর রহমানের সভাপতিত্বে এ আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন সদর ২ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আলহাজ্ব মোঃ নজরুল ইসলাম, সদর উপজেলা পরিষদরে চেয়ারম্যান মোঃ আছাদুজ্জামান বাবু, জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক অধ্যাপক আবু আহমেদ, সৈয়দ ফিরোজ কামাল শুভ্র, সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এস এম শওকত হোসেন, সাধারন সম্পাদক শাহাজান আলী, পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি শেখ নুরুল হক, সাধারন সম্পাদক শাহাদাত হোসেন প্রমুখ। আলোচনা সভা শেষে একটি বর্নাঢ্য শোক র‌্যালী শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। এসময় সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামীলীগের সকল অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

## সাতক্ষীরায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে ছাত্রশিবিরের সাবেক সভাপতি গুলিবিদ্ধ
সাতক্ষীরায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে একাধিক হত্যা মামলার আসামি ও কলারোয়া উপজেলা ছাত্রশিবিরের সাবেক সভাপতি সামছুল আলম বুলবুল (৩৫) গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। শনিবার ভোর রাত ৩টার দিকে কলারোয়া উপজেলার গাজনা গ্রামে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। গুলিবিদ্ধ সামছুল আলম বুলবুল কলারোয়া উপজেলার গাজনা গ্রামের মাওলানা আতাউর রহমানের ছেলে। কলারোয়া উপজেলার সরসকাটি পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক (এসআই) ময়েন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, রাতে গাজনার দাউদ আলীর বাড়ি থেকে বুলবুলকে গ্রেফতারের পরপরই তার সহযোগীরা পুলিশের ওপর হামলা করে। এ সময় পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশের গুলিতে বুলবুল দুই পায়ের হাটুতে গুলিবিদ্ধ হন। পরে তাকে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার নামে কলারোয়া থানায় চারটি হত্যা মামলাসহ প্রায় এক ডজন মামলা রয়েছে।

## সুন্দরবনে পুলিশের সাথে সংঘর্ষে বনদস্যু আলিম বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড কামরুল ইসলাম গুলিবিদ্ধ:
সুন্দরবনে পুলিশের সাথে বনদস্যুদের সংঘর্ষে বনদস্যু আলিম বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড কামরুল ইসলাম গুলিবিদ্ধ হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে পুলিশের তিন সদস্য। ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ একটি পাইপগান ও চার রাউন্ড গুলি উদ্ধার করেছে।
শুক্রবার রাত ১১টার দিকে সুন্দরবন সাতক্ষীরা রেঞ্জের বড় টিয়াখালী নদী এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত দস্যুদের ঘাটি তছনছ করতে পুলিশের অভিযান চলছিল।
শ্যামনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুল ইসলাম জানান, আলিম বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড কামরুল ইসলাম সুন্দরবনের ত্রাস। তার বিরুদ্ধে কালিগঞ্জ, শ্যামনগর ও কয়রা থানায় হত্যা, লুণ্ঠনসহ একাধিক মামলা রয়েছে। শুক্রবার সকালে কালিগঞ্জের মীরজাঙ এলাকা থেকে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। তার স্বীকারোক্তি মোতাবেক অস্ত্র উদ্ধারে বিকেলে পুলিশ তাকে নিয়ে বড় টিয়াখালী নদী এলাকায় পৌঁছালে তার সঙ্গীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। পুলিশও ত্রিশ রাউন্ড গুলি ছোড়ে। এতে কামরুল গুলিবিদ্ধ হয়। অপরদিকে পুলিশের তিন সদস্যও আহত হন।

## বঙ্গবন্ধু পরিষদের প্রকাশনা ‘জাতীয় শোক দিবস ২০১৪’ সংখ্যা’র মোড়ক উন্মোচন
জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু পরিষদের আয়োজনে প্রকাশনা ‘জাতীয় শোক দিবস ২০১৪’ সংখ্যা’র মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে। শুক্রবার রাত ৮টায় সাতক্ষীরা রেড ক্রিসেন্ট কার্যালয়ে এ প্রকাশনা অনুষ্ঠানে জেলা বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি মকসুমুল হাকীমের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে মোড়ক উন্মোচন করেন সাতক্ষীরা ২ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আছাদুজ্জামান, পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি শেখ নুরুল হক। এসময় উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কোহিনুর ইসলাম, পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক শাহাদাত হোসেন, জেলা শ্রমিকলীগের যুগ্ম সম্পাদক শেখ তৌহিদুর রহমান ডাবলু, অতিরিক্ত পিপি এড. মিজানুর রহমান, বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ মহিউদ্দীন হাশেমী, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক সাহানারা খাতুন শিলা, সাংস্কৃতিক সম্পাদক সালেহা আক্তার, দপ্তর সম্পাদক মিজানুর রহমান, কার্যকরী সদস্য শেখ আজিজুল হক, প্রভাষক সুশান্ত কুমার মন্ডল, কাজী এনামুল হক, শেখ তৌহিদুজ্জামান চপল, কাজী আমিনুর রহমান প্রমুখ। আলোচনা সভায় বক্তারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও জীবনী সম্পর্কে আলোচনা করেন। সমগ্র অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন জেলা বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারন সম্পাদক এড. ওসমান গণি।



(পরের সংবাদ) »



মন্তব্য চালু নেই