মেইন ম্যেনু

সরকারি চালে ৬ দিন পর ভাত খেলেন মিস্টার মিয়া

হাওরে আগাম বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত এক কৃষক ছয় দিন পর সরকারের দেয়া চালে ভাত খেতে পেরেছেন। এই ছয় দিন তাকে মিষ্টি আলু খেয়ে কাটাতে হয়েছে।

ওই কৃষকের নাম মিস্টার মিয়া। তার বাড়ি নেত্রকোনার মদন উপজেলার দেওসাহিলা মাছপাড়া গ্রামে। সরকারি সাহায্য হিসেবে ১০ কেজি চাল এবং ৫ কেজি ময়দা পেয়েছেন ৬৬ কাঠা (প্রতি কাঠা ১০ শতাংশ) জমির ফসল হারানো মিস্টার মিয়া।

এমন বন্যার পর অভাবে পড়ে এই গ্রামের শতাধিক পরিবার কাজের খোঁজে শহরে আশ্রয় নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন এলাকাবাসী।

এদের একজন সাইকুল ইসলাম (৪৫) মাছ ধরে জীবিকা নির্বাহের চেষ্টা করেও ব্যর্থ পরিবার নিয়ে এখন ঢাকা যাওয়ার চেষ্টা করছেন মজুরের কাজ করতে।

তিনি চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, নেত্রকোনা ও কিশোরগঞ্জের দুই জেলায় বিস্তৃত তল্লার হাওরে কোন বেড়ি বাঁধ নেই।এর ওপর প্রায় ১ লাখ মানুষের জীবন জীবিকা নির্বাহ করে।

গত কয়েকদিনে অতিবৃষ্টি ও পাহাড় থেকে নেমে আসা পানির কারণে হাওরাঞ্চলের কয়েকটি বাঁধ ভেঙে আগাম বন্যায় তলিয়ে গেছে কয়েক লাখ হেক্টর জমির ধান।






মন্তব্য চালু নেই