মেইন ম্যেনু

শরীয়তপুরে ১৩ বছরের এক কিশোরী নিখোঁজ

শরীয়তপুর প্রতিনিধিঃ শরীয়তপুর জেলা ডামুড্যা উপজেলায় ধানকাটি ইউনিয়ন দশমনতারা গ্রামের জাকির মালতের মেয়ে তামান্ন (১৩) নামে এক কিশোরী নিখোজ হন।

পরিবার ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, একই এলাকার আয়নাল পেদার ছেলে তার দূর সর্ম্পকের ফুফাতো ভাই আজিজুল পেদা (৩০) সহিত গত ২১/০১/২০১৭ ইং তারিখে বিকাল ৪.৩০ মিনিটে বেড়াইতে যায়। বেড়াইতে যেয়ে তাহারা আর বাড়িতে ফিরে আসেনি। তাহার বাড়ির লোকজন সম্ভব্য সকল স্থানে খোজাখুজি করিয়া কোথায়ও খুজিয়া পায় নাই। আজিজুলের বর্তমান ফোন নাম্বার০১৯৯৭১০১৮০১ বন্ধো রয়েছে। এব্যাপারে ডামুড্যা থানায়২৩/০১/২০১৭ ইং একটি সাধারণ ডায়েরী করা হয়েছে তাহার জিডি নাম্বার ৭৯৫।

উল্লেখ্য আজিজুল পেদা নামে বিভিন্ন থানায় নারী ও শিশু পাচারকারীর মামলা রয়েছে। তিনি বিভিন্ন যায়গায় গিয়ে মেয়েদের বিয়ের প্রলোভন দিয়ে সংঘবদ্ধ চক্রের কাছে বিক্রি করে দেয়। আজিজুল পেদা একাধিক বিয়ে করেন, বর্তমানে তার দুইয়ের অধিক বউ রয়েছে। বর্তমানে তিনি একজন ফেরওয়ারী আসামী হিসেবে পুলিশের কাছে চিহ্নিত । তিনি বিভিন সময় বিভিন্নœ যায়গায় গিয়ে গা ঢাকা দেয়।

ভিকটিমের মা রুবিনা আক্তার বলেন, আমি গত শনিবার আমার বাপের বাড়ি বেড়াইতে যাই বাড়িতে এসে শুনি আমার ফুফাতো ভাসুরের ছেলে আজিজুল পেদার সাথে বেড়াইতে যায়, বেড়াইতে গিয়ে ও আর ফিরে আসেনি, আমরা সব খানে খোজা খুজি করে ওকে কোথায়ও পাইনি। আমি জানি না আমার মেয়ে কেমন আছে! ও আমার মেয়েকে কি করছে। আমি আমার মেয়েকে সুস্থ ফিরে পেতে চাই। আর লম্পট আজিজুলের প্রশাসনের কাছে কঠিন শাস্তি চাই, আমার মেয়ের মত যেন আর কারও মেয়ের এমন ক্ষতি না করতে পারে।

ডামুড্যা থানার ওসি মাহবুবুর রহমান বলেন, এব্যাপারে থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করা হযেছে তর্দন্ত সাপেক্ষে আমরা এর সঠিক ব্যবস্থা নিব।






মন্তব্য চালু নেই