মেইন ম্যেনু

মুস্তাফিজের সঙ্গে এই মেয়েটি কে?

বাংলাদেশের তুমুল জনপ্রিয় ফাস্ট বোলার মুস্তাফিজকে নিয়ে দায়িত্বজ্ঞানহীন খবর পরিবেশন করলো কলকতার দৈনিক এবেলা। মুস্তাফিজের সঙ্গে কে এই মেয়েটি- এই শিরোনামে আজ একটি প্রতিবেদন পরিবেশন করে দৈনিকটি। যেখানে মুস্তাফিজের সঙ্গে ঐ মেয়েটির রোমান্টিক সম্পর্ক খোঁজার চেষ্টা করা হয়েছে। অনুমান নির্ভর ঐ রিপোর্টে তাকে মুস্তাফিজের গ্রামের মেয়ে বলে উল্লেখ করা হয়।

কিন্তু প্রকৃত ঘটনা হলো-মুস্তাফিজের গ্রামের নয়, ছবির এই মেয়েটি সাতক্ষীরা জেলার প্রশাসকের।বৃহস্পতিবার বিকালে জেলা প্রশাসক ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি আবুল কাশেম মোঃ মহিউদ্দিনের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল কালীগঞ্জের তেতুলিয়ায় যান মুস্তাফিজকে সংবর্ধনা দেওয়ার জন্য।জেলা ক্রীড়া সংস্থার পক্ষ থেকে এক লক্ষ টাকার চেকও দেওয়া হয় আইপিএল-জয়ী মুস্তাফিজকে।

সেসময় গ্রুপ ছবির পাশাপাশি মুস্তাফিজের সঙ্গে এককভাবেও ছবি তুলেন কেউ কেউ। মুস্তাফিজের সঙ্গে এককভাবে ছবি তুলেন জেলা প্রশাসকের মেয়েও। আর এই ছবিটা নিয়েই যত কানাঘুষা।

নিচে দৈনিক এবেলাতে প্রকাশিত প্রতিবেদনটি দেওয়া হলো-

মুস্তাফিজুর রহমান কি প্রেমে পড়েছেন? এই প্রশ্নের সদুত্তর কেউ দেননি ঠিকই। মুস্তাফিজুরকে যাঁরা খুব কাছ থেকে চেনেন, জানেন, তাঁরা বলে থাকেন, বাংলাদেশের এই বাঁ হাতি পেসার খুবই লাজুক স্বভাবের।

মুস্তাফিজুরকে নিয়ে জল্পনা শুরু হয়ে গিয়েছে একটি ছবি দিনের আলো দেখার পরে। ছবিতে দেখা গিয়েছে মুস্তাফিজুরের পাশে রয়েছে একটি মিষ্টি মেয়ে। আর সেই ছবি প্রকাশিত হওয়ার পরেই মুস্তাফিজের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে শুরু হয়ে গিয়েছে চর্চা। এই মেয়েই কি মুস্তাফিজুরের প্রেমিকা? এই প্রশ্নের উত্তর খুঁজছে বাংলাদেশ।

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ কাঁপানো মুস্তাফিজুর অবশ্য তাঁর ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে একটি মন্তব্যও করেননি। কিন্তু দুয়ে দুয়ে চার করার চেষ্টা করা হচ্ছে। আবির্ভাবেই ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন মুস্তাফিজুর। বেস্ট এমার্জিং ক্রিকেটার হয়েছেন এই বাঁ হাতি বোলার। সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে চ্যাম্পিয়ন করে বাংলাদেশে ফেরার পরে অনেকেই মুস্তাফিজুরের সঙ্গে দেখা করতে যান সাতক্ষীরায়। সেই সময় একটি মেয়ে মুস্তাফিজুরের সঙ্গে ছবি তোলেন। আর এই ছবিই জন্ম দিয়েছে যাবতীয় জল্পনার। মুস্তাফিজুরের প্রেম নিয়ে চলছে চর্চা। জানা গিয়েছে মেয়েটি মুস্তাফিজুরের গ্রামেরই।






মন্তব্য চালু নেই