মেইন ম্যেনু

মমতার সঙ্গে দেখা হবে এরশাদের?

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ অাজ ভারতের পশ্চিমবঙ্গের কোচবিহারে যাচ্ছেন। সেখানে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের সঙ্গে এরশাদের সৌজন্য সাক্ষাতের সম্ভাবনা রয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের আনন্দবাজার পত্রিকা।

পত্রিকাটির খবরে বলা হয়েছে, আজ রোববার চ্যাংরাবান্ধা সীমান্ত হয়ে সড়ক পথে কোচবিহারে যাবেন এরশাদ। পৈতৃক ভিটের টানেই কোচবিহারের দিনহাটায় যাচ্ছেন তিনি। সোমবার দিনহাটার পারিবারিক অনুষ্ঠানে থাকবেন তিনি। মঙ্গলবার কোচবিহার শহরের রাজবাড়ি ঘুরে দেখার কথা রয়েছে তার।

মঙ্গলবার কোচবিহারে একাধিক কর্মসূচি রয়েছে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের। সেক্ষেত্রে ‘প্রোটোকল’ সংক্রান্ত কোনো জটিলতা বা ‘সময়সূচি’ নিয়ে কোনো সমস্যা না হলে এই দুই নেতা-নেত্রীর সৌজন্য সাক্ষাৎ হতে পারে।

এরশাদের পারিবারিক সূত্রের বরাত দিয়ে আনন্দবাজারের খবরে বলা হয়েছে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সফরসূচির কথা জেনে ঘনিষ্ঠমহলে তার সঙ্গে সাক্ষাতের ব্যাপারে আগ্রহের কথাও জানিয়েছেন এরশাদ।

বছর দেড়েক আগে মমতার জন্য এরশাদের স্বরচিত কবিতার বই, শাড়ি কলকাতায় পৌঁছে দেন তার আত্মীয় আহসান হাবিব। আগেও তাদের সৌজন্য সাক্ষাৎ হয়েছে। এরশাদের ভাতিজা জাকারিয়া হোসেন জানিয়েছেন, ‘এবার কোচবিহার শহর ঘুরে দেখার সময় ডুয়ার্সের বাড়িতেও যাবেন জ্যাঠা। মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে এবার তার দেখা হতে পারে। কোচবিহারে তিনি আসার পরেই বিষয়টি চূড়ান্ত হবে।’

অানন্দবাজারের খবরের শেষে উল্লেখ করা হয়েছে, কোচবিহারের দিনহাটার পুরাতন বাসস্ট্যান্ড এলাকায় এরশাদের পৈতৃক বাড়ি। এলাকায় তিনি ‘পেয়ারাদা’ নামে পরিচিত। ১৯৪৬ সালে দিনহাটা হাইস্কুল থেকে ম্যাট্রিকুলেশন পরীক্ষায় পাস করেন এরশাদ। তারপর রংপুর কলেজে পড়তে যান। দেশভাগের জন্য ঘরে ফেরা হয়নি তার।






মন্তব্য চালু নেই