মেইন ম্যেনু

ভারতে নারী ধূমপায়ীর সংখ্যা বাড়ছে

ভারতীয় পুরুষদের মধ্যে ধূমপানের হার কমলেও বাড়ছে নারীদের মধ্যে। সম্প্রতি প্রকাশিত একটি জরিপে এ তথ্য জানা গেছে। গত ৩২ বছরে দেশটিতে নারী ধূমপায়ীর সংখ্যা বেড়েছে ১৯ দশমিক ৮ শতাংশ।
ব্রিটিশ মেডিকেল জার্নালে প্রকাশিত এক জরিপে দেখা গেছে, ১৯৮০ সালে যেখানে ৩৩ দশমিক ৮ শতাংশ ভারতীয় পুরুষ ধূমপান করত, ২০১২ সালে তা কমে দাঁড়িয়েছে ২৩ শতাংশে।
অন্যদিকে, ১৯৮০ সালে যেখানে ৩ দশমিক ২ শতাংশ নারী ধূমপান করত, ২০১২ তে এসে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৩ শতাংশে। এই ৩২ বছরে ধূমপায়ী নারীর সংখ্যা ৫৩ লাখ থেকে বেড়ে ১ কোটি ২২ লাখে দাঁড়িয়েছে।
১৯৮০ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত ১৮৭ দেশের ধূমপান সম্পর্কিত তথ্য ব্যবহার করে জরিপটি করা হয়েছে।
নারীদের মধ্যে ধূমপায়ী হার বৃদ্ধি প্রসঙ্গে নিভিনি কিশোর নামে এক চিকিৎসক বলেন, জীবন যাত্রার পরিবর্তন নারীদের সিগারেট আসক্তি বৃদ্ধির অন্যতম কারণ। এর ফলে নারীদের মধ্যে ক্যান্সার ও বন্ধ্যত্ব বৃদ্ধি পাবে।
সারাবিশ্বে তামাক উৎপাদনের দিক থেকে ভারতের অবস্থান সবার শীর্ষে আর তামাকজাত পণ্য সেবনের ক্ষেত্রে দ্বিতীয়। অন্য একটি জরিপ থেকে দেখা গেছে সারাবিশ্বে ক্যান্সারে মারা যাওয়া পুরুষদের মধ্যে ৪২ শতাংশের মৃত্যু হয় তামাকজাত দ্রব্য সেবনের কারণে। আর নারীদের ক্ষেত্রে এ হার ১৮ দশমিক ৩ শতাংশ।






মন্তব্য চালু নেই