মেইন ম্যেনু

বৃহস্পতিবার থেকে ১৮২ উপজেলায় ভোটারতালিকা হালনাগাদের তথ্য সংগ্রহ শুরু

বৃহস্পতিবার থেকে প্রথম ধাপে বাড়ি বাড়ি গিয়ে ছবিসহ ভোটারতালিকা হালনাগাদের কাজ শুরু করতে যাচ্ছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এবার তিনটি ধাপে সারাদেশে ভোটারতালিকা হালনাগাদের কাজ শেষ হবে।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী রকিবউদ্দীন আহমদ মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলায় বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় আনুষ্ঠানিকভাবে এর উদ্বোধন করবেন। নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের জনসংযোগ পরিচালক এসএম আসাদুজ্জামান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

ইসি জানায়, এ ধাপে দেশের ১৮২টি উপজেলায় ভোটারতালিকা হালনাগাদ করা হবে। ইতোমধ্যে সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে কমিশন। এ লক্ষ্যে সংশোধিত আকারে ১৫ লাখেরও বেশি নিবন্ধন ফরম ছাপিয়েছে নির্বাচন কমিশন। নিবন্ধন, স্থানান্তর, সংশোধন, কর্তনসহ কয়েক ধরনের ফরম সংশ্লিষ্ট উপজেলাতে পাঠানো হয়েছে।

ভোটারতালিকা হালনাগাদের কাজ সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করতে ইতোমধ্যে প্রচারণা শুরু করেছে কমিশন। স্থানীয় পর্যায়ে প্রচারণার দায়িত্ব বিভিন্ন এনজিওকে দেয়া হয়েছে ।

ইসি আরো জানায়, মোবাইল ফোনে ক্ষুদে বার্তা ও স্থানীয় পর্যায়ে মাইকিং করে প্রচারণা চালানো হবে। ইতোমধ্যে বিভিন্ন জাতীয় দৈনিকও বিজ্ঞাপন দেয়া হচ্ছে। টিভি মিডিয়াতেও বিজ্ঞাপন প্রচার করা হতে পারে। এছাড়া স্থানীয় পর্যায়ে পোস্টার ও লিফলেট বিতরণ করা হবে।

এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনের জনসংযোগ পরিচালক এসএম আসাদুজ্জামান জানান, প্রথম ধাপে ১৮২টি উপজেলায় তথ্যসংগ্রহ করা হবে। তথ্যসংগ্রহকারীরা নতুন ভোটারদের তথ্য সংগ্রহ করবেন। এছাড়া যারা মারা গেছেন তাদের নাম তালিকা থেকে বাদ দেবেন।

বর্তমানে ভোটার তালিকায় ৯ কোটি ১৯ লাখের বেশি ভোটার অন্তুর্ভুক্ত রয়েছেন। এবার ২০১৪ ও ২০১৫ সালে প্রায় ৪৬ লাখ ভোটার নতুন করে অন্তর্ভূক্ত হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ২০১৫ সালের জানুয়ারিতে যাদের বয়স ১৮ বছর পূর্ণ হবে তালিকাভূক্ত হতে পারবেন। অর্থাৎ ১৯৯৭ সালের ১ জানুয়ারি বা এর আগে যাদের জন্ম হয়েছে তাদের ভোটার তালিকাভূক্ত করবে ইসি।

প্রসঙ্গত, প্রথম ধাপে ১৮২টি উপজেলায় ১৫ মে থেকে ২৪ মে, দ্বিতীয় ধাপে ১৫ জুন থেকে ২৪ জুন ২১৯টি উপজেলায় এবং তৃতীয় ধাপে ১১৩টি উপজেলায় ১ সেপ্টেম্বর থেকে ১০ সেপ্টেম্বর ভোটারতালিকা হালনাগাদ করা হবে।






মন্তব্য চালু নেই