মেইন ম্যেনু

‘বাজিগর’-এ কেন অ্যান্টি-হিরো, ২৫ বছর পর ফাঁস করলেন শাহরুখ

প্রথম ফিল্মে দিব্যা ভারতীর ‘দিওয়ানা’। কিন্তু, পরের বছর তিনিই হলেন কাজলের ‘বাজিগর’। সে বছরই ফের জুহির ‘ডর’।

কেরিয়ারের শুরুতেই অ্যান্টি-হিরোর রোলে বলিউ়়ডের চেনা ছক ভেঙেছিলেন শাহরুখ খান। নব্বইয়ের দশকে যে কথা ভাবতেও কেঁপে উঠতেন টিনসেল টাউনের অধিকাংশ চকোলেট হিরো। কিন্তু, তিনি হলেন কিঙ্গ খান। বলিউডে পা রাখার আগে থেকেই সেই ছকভাঙা অঙ্কে পটু। কেরিয়ারের শুরুতেই অ্যান্টি-হিরো সাজার ঝুঁকি কেন নিলেন তিনি? ২৫ বছর পর স্বয়ং শাহরুখ ফাঁস করলেন সে রহস্য! তবে তা জানার আগে একটু পিছন ফিরে তাকানো যাক।

টেলিভিশনে মুখ দেখানোর পর যখন অধিকাংশ অভিনেতারা সেখানেই কেরিয়ার গড়ার কথা ভাবতে শুরু করেন তখনও শাহরুখ ছকভাঙা। আটের দশকের শেষে ‘দিল দরিয়া’ বা ‘ফৌজি’-র মতোজনপ্রিয় সিরিয়ালের নায়ক তখন বোকাবাক্সের মায়া কাটিয়ে দিনরাত এক করে দিচ্ছেন বলিউডে ব্রেক পাওয়ার জন্য। নিজের শহর দিল্লি ছেড়ে মুম্বইয়ের ঘাঁটি গেড়েছেন। অভিনয়ে ঝালাই দিতে ব্যারি জনের থিয়েটারেও নিয়মিত মুখ। শেষমেশ ব্রেক মিলল। রাজ কানোয়ারের ফিল্ম। তবে সোলো হিরো নন। ঋষি কপূরের মতো স্টারের পাশে সেকেন্ড লিড। তাতেই রাজি দিল্লির রাজেন্দ্রনগরের বাসিন্দা। নায়িকা দিব্যা ভারতীর সঙ্গে অনস্ক্রিন রোম্যান্সের পর বলিউড টের পেল শাহরুখের উপস্থিতি। ফিল্ম রিলিজের পর সকলেই তাঁর দিওয়ানা। কিন্তু, পরের ফিল্মেই ফের অবাক করা কাণ্ড। হিরো নন। শাহরুখ এ বার ভিলেন। না! তা-ও নন। অ্যান্টি-হিরো। গতেবাঁধা বলিউডি ভিলেনের থেকে জরা হট্‌কে। নায়িকার প্রেমে পাগল। অথচ তাঁর আশপাশের মানুষজনের ক্ষতি করতেও ছাড়েন না। আর এর পিছনে রয়েছে একটা গল্প। তাই তিনি অ্যান্টি-হিরো। ভিলেন নন।

৫১ বছরের শাহরুখ জানিয়েছেন, অন্য হিরোরা যখন ‘ডর’ বা ’বাজিগরে’র মতো ফিল্ম ‘না’ বলছেন তখন তিনি তাতে কাজ করতে রাজি হয়েছিলেন। আর সে সময় তাঁর সাহসের তারিফও জুটেছিল। তবে এত দিন পর তার আসল কারণ জানিয়ে বলিউড বাদশা বলেন, “না! তখন এতটাও সাহসী ছিলাম না। অথবা মনে করতাম যে, আমি দারুণ কোনও অভিনেতা। আসলে ভেবেছিলাম, আমি তো আর হিরোদের মতো ততটা গুডলুকিং নই। তাই যদি ভিলেনের রোলও হয়, তবে ক্ষতি কী!” এর পর শাহরুখ আরও খোলামেলা। তিনি বলেন, “আমি শুধু অভিনয় করতে চেয়েছিলাম। তাই ওই রোলগুলি করেছিলাম। কারণ, আমার মনে হয়, অভিনয়টা বোধহয় একটু-আধটু জানি!”-আনন্দবাজার






মন্তব্য চালু নেই