মেইন ম্যেনু

বন্যায় বিপর্যস্ত জনজীবন, ত্রাণের জন্য হাহাকার

নিজস্ব প্রতিবেদক : মানবতাবিরোধী অপরাধে আমৃত্যু কারাদ-প্রাপ্ত প্রাক্তন মন্ত্রী আবদুল আলীম মারা গেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। শনিবার দুপুরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

এর আগে গত ২৬ আগস্ট আবদুল আলীমকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায়  তাকে প্রিজন সেল থেকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) নেওয়া হয়। সেখানে তার মৃত্যু হয়।

ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের জ্যেষ্ঠ জেল সুপার ফরমান আলী জানান, ‘শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায় গত মঙ্গলবার তাকে হাসপাতালের আইসিইউতে নিয়ে ফুসফুস থেকে পানি বের করা হয়েছিল। এই কয়েকদিন তিনি লাইফ সাপোর্টেই ছিলেন। শনিবার সোয়া ১টায় লাইফ সাপোর্ট খুলে দিলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।’

স্বাধীনতাবিরোধী রাজনৈতিক দল মুসলিম লীগের নেতা হিসাবে একাত্তরে জয়পুরহাটে রাজাকার বাহিনীকে সঙ্গে নিয়ে ব্যাপক নিধনযজ্ঞ চালানোর দায়ে গত বছর ৯ অক্টোবর আব্দুল আলীমকে আমৃত্যু কারাদণ্ডাদেশ দেয় আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।

জিয়াউর রহমানের আমলের মন্ত্রী আলীমের বিরুদ্ধে মানবতাবিরোধী অপরাধের ১৭টি অভিযোগ আনা হলে এর মধ্যে নয়টিতে তার সংশ্লিষ্টতার প্রমাণ পায় আদালত।

বয়স ও স্বাস্থ্যের অবস্থা বিবেচনা করে রায়ের দিন থেকেই তাকে বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রিজন সেলে রাখা হয়।

এসব অভিযোগের মধ্যে হত্যা, লুটতরাজ, দেশত্যাগে বাধ্য করা, অগ্নিসংযোগের মতো অপরাধ রয়েছে।



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই