মেইন ম্যেনু

নিহতের সংখ্যা ৬, নিখোঁজ অসংখ্য

নেপালে ভয়াবহ ভূমিধস, নদী উপচে ব্যাপক বন্যার আশঙ্কা

ভারতের পর এবার নেপালে ভয়াবহ ভূমিধসের ঘটনা ঘটলো, রাজধানী কাঠমান্ডুর পূর্বাঞ্চলে সিন্ধুপালচৌক জেলায় প্রায় অর্ধশত বাড়িঘর মাটি চাপা পড়ার খবর মিলেছে, এখনও পর্যন্ত মৃত্যু সংবাদ এসেছে ৬ জনের এবং নিখোঁজ রয়েছেন অসংখ্য।

এদিকে গোদের ওপর বিষফোঁড়ার মতো ধসের মাটি গিয়ে পড়েছে সানকোশি নদীর ওপর এবং একভাগে জলের উচ্চতা বেড়েই চলেছে, স্থানীয়দের ঘরবাড়ি ছেড়ে তুলনামূলক উঁচু স্থানের সন্ধানে যেতে হচ্ছে। ।

নদীর গতিপথ উন্মুক্ত করে দিতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে সেনাবাহিনীর সহযোগীতা নেয়ার উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে বলে জানানে হয়েছে। নেপালের এক পুলিশ কর্মকর্তা বার্তাসংস্থা এএফপিকে জানান, পুলিশ এবং সেনাবাহিনী শিগগিরই উদ্ধারাভিযান শুরু করতে যাচ্ছে।

স্থানীয়রা বিপুল সংখ্যক প্রাণহানির আশংকা করছে। শিগগিরই উদ্ধার তৎপরতায় নামতে যাচ্ছে একাধিক স্বেচ্ছাসেবী দল ও প্রশাসন নিযুক্ত সেনাবাহিনীর একাংশ। সিন্ধুপালচৌক জেলাটি রাজধানী কাঠমান্ডু থেকে ১২০ কিলোমিটার পূর্বে অবস্থিত।

ইতোমধ্যে নেপাল থেকে তিব্বতগামী আরনিকো মহাসড়কটি বন্যা ঝুঁকির কারণে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, জুন থেকে সেপ্টেম্বর মাসে ভূমি ধসের ঘটনা নেপালের সাধারণ দুর্ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এবং ধসের মাটি নদীতে পড়ে এর আগেও বন্যার ঘটনা ঘটেছে।






মন্তব্য চালু নেই