মেইন ম্যেনু

নগ্ন হয়ে হেঁটে যৌন ক্ষমতা প্রদর্শন করতেন এই রাজা!

ভারতের রাজ পরিবারের অস্তিত্বের কথা সবারই জানা। তাদের ধন-ঐশ্বর্যের প্রমাণ আজও মেলে। কিন্তু সেই ঔজ্জ্বল্যের আড়ালে আছে গোপন অন্ধকার। সেসব পরিবারের এমন অনেক কথা রয়েছে, যা আজও অন্ধকারেই রয়ে গিয়েছে। এমন কিছু গোপন সত্যি, যা প্রকাশ্যে আসেনি। বিভিন্ন সময়ে ভারতের এইসব রাজ পরিবার নিয়ে গবেষণা করতে গিয়ে সেসব তথ্য উঠে এসেছে।

জেনে নিন এরকমই কিছু গোপন ইতিহাস:

1. পাতিয়ালার মহারাজা ভুপিন্দর:
তাঁর ৮৮ জন সন্তান ছিলেন বলে জানা যায়। স্ত্রী’ ছিল পাঁচজন। মহারাজা নাকি বছরে একবার সবার সামনে নগ্ন হয়ে হেঁটে নিজের যৌন ক্ষমতা প্রদর্শন করতেন।

2. জুনাগড়ের নবাব:
শোনা যায়, এই নবাবের ছিল ৮০০টি কুকুর। প্রত্যেকের জন্য একজন করে কাজের লোক। তাঁর দুই প্রিয় কুকুরের বিয়ের জন্য তখনকার দিনে কয়েক লক্ষ টাকা খরচ করেছিলেন তিনি।

3. রাজকুমার মানবেন্দ্র সিং গোহিল:
তিনিই একমাত্র রাজ পরিবারের সদস্য ছিলেন, যিনি প্রকাশ্যে স্বীকার করেছিলেন যে তিনি সমকামী। পরবর্তীকালে তাঁর পরিবার তাঁকে অস্বীকার করে। তিনি পরিবারকে কলঙ্কিত করেছিলেন বলে অভিযোগ তোলা হয়।

4. হায়দরাবাদের নিজাম:
সম্পত্তি খোয়াতে পারেন। নিয়ে নিতে পারে সরকার। সেই ভয়ে ট্রাকের লুকিয়ে ফেলেছিলেন তাঁর সব ধন -সম্পদ। যা পরে পোকায় কাটতে শুরু করেছিল বলে শোনা যায়।

5. বিকানিরের রাজকন্যা:
রাজকুমারী রাজশ্রী কুমারী একজন অর্জুন পুরস্কার পাওয়া জাতীয় স্তরের শুটার। বর্তমানে তিনি রাজস্থানের একাধিক ট্রাস্টের কর্ণধার। তাঁর একটি হোটেলও রয়েছে। সূত্র: কলকাতা টুয়েন্টিফোর।






মন্তব্য চালু নেই