মেইন ম্যেনু

দুই ‘জঙ্গি আস্তানা’র আশপাশ এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি

মৌলভীবাজারে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে ঘিরে রাখা দুটি বাড়ির আশপাশের ২ বর্গকিলোমিটার এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়।

সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান মিজান ও ৬নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জালাল আহমেদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তারা জানান, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে ও জানমালের নিরাপত্তায় ৬নং ওয়ার্ড ও খলিলপুর ইউনিয়নের দুই বর্গকিলোমিটার এলাকাজুড়ে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত এই ধারা অব্যাহত থাকবে। বাড়ির আশপাশ থেকে স্থানীয় লোকদের নিরাপদ দূরত্বে থাকতে মাইকিং চলছে।

এদিকে অভিযান শুরুর পর থেকে আস্তানা দুটির আশপাশের এলাকায় আতঙ্ক দেখা দিয়েছে। বেলা আড়াইটায় শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত র‌্যাব, পুলিশ ও কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের সদস্যরা বাড়ি দুটি ঘিরে রেখেছেন। অভিযান শুরুর জন্য তারা সোয়াটের অপেক্ষা করছেন। সকাল ১১টায় ঢাকা থেকে রওনা হওয়া সোয়াটের সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছলের অভিযানের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

কথা হয় নাসিরপুরের আস্তানা এলাকায় অবস্থান নেয়া সহকারী পুলিশ সুপার রওশনউজ্জামানের সঙ্গে। মৌলভীবাজার প্রতিনিধিকে তিনি জানান, আমরা সোয়াটের জন্য অপেক্ষা করছি। তারা আসলেই অভিযান চালানোর ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

এদিকে ঘিরে রাখার পর আজ সকালে নাসিরনগরের জঙ্গি আস্তানাটিতে বিকট শব্দে বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণের খবর পাওয়া গেছে। পুলিশের ধারণা, আত্মসমর্পণ না করে জঙ্গিরা বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়ে আত্মহত্যা করতে পারে। তবে অভিযান শেষ না হওয়া পর্যন্ত কিছুই বলা যাচ্ছে না।

গত বছরের ১ জুলাই গুলশানের হলি অর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলায় ১৭ বিদেশি নাগরিকসহ ২২ জন নিহত হয়। এরপর সারাদেশে আরও কয়েকটি হামলা করে জঙ্গিরা। জঙ্গি নির্মূলে দেশব্যাপী সাঁড়াশি অভিযান চালায় পুলিশ। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযানে নিষিদ্ধ সংগঠন জেএমবির বেশ কয়েকজন নেতাসহ অর্ধশতাধিক জঙ্গি নিহত হয়।

সর্বশেষ গত শুক্রবার সিলেটের শিববাড়ীতে অভিযান চালাতে গিয়ে জঙ্গিদের প্রতিরোধের মুখে পড়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। অভিযানের সময় বাড়িটির অদূরে বোমা বিস্ফোরণে পুলিশ কর্মকর্তাসহ ছয়জন নিহত হয়। আহত হয় র‌্যাবের গোয়েন্দা বিভাগের প্রধানসহ অনেকে। পাঁচ দিন অভিযান চালানোর পর গতকাল রাতে অভিযান সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়। সিলেটের রেশ কাটার একদিন যেতে না যেতেই মৌলভীবাজারে নতুন জঙ্গি আস্তানার সন্ধান পেল আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। সন্দেহজনক দুটি জঙ্গি আস্তানা ঘিরে রাখতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যসংখ্যা বাড়ানো হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই