মেইন ম্যেনু

দিনাজপুর সংবাদ

মাহমুদুল হক মানিক, দিনাজপুর প্রতিনিধি:

## বিরামপুরে ইয়াবা ও ফেন্সিডিলসহ আটক-২
বিরামপুর থানা পুলিশ ইয়াবা ও ফেন্সিডিলসহ ২ জনকে আটক করে সোমবার (১৯মে) দিনাজপুর জেল হাজতে পাঠিয়েছে।
বিরামপুর থানার ওসি মমিনুল ইসলাম জানান, পাবনা জেলার চাটমোহর ফৈলজানা গ্রামের এবারেস্ট কুরাইয়ার পুত্র জনি কুরাইয়া বিরামপুর পুরাতন সোনালী ব্যাংক মোড়ে বাসের জন্য অপেক্ষা করছিল। এসময় এএসআই আলাউদ্দিন তাকে আটক করে এবং দেহ তল¬াশী করে ৬৫পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করে।
অপরদিকে, বিরামপুরের টাটকপুর গ্রামের অফিজ উদ্দিনের পুত্র সেলিম (৪০) অভিনব পন্থা হিসাবে স্কুল ব্যাগে ৫৩ বোতল ফেন্সিডিল বহনকালে এএসআই নজরুল ইসলাম তাকে কোচ কাউন্টার এলাকা থেকে আটক করেছে।

##বিরামপুরে সাইকেল ও সেলাই মেশিন বিতরণ
বিরামপুর উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ও এডিবির অর্থায়নে আনসার ভিডিপি সদস্যদের মাঝে ৪টি বাইসাইকেল ও ৭টি সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়েছে। সোমবার উপজেলা পরিষদ চত্বরে এসব বিতরণ করেন, উপজেলা চেয়ারম্যান পারভেজ কবীর ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম মনিরুজ্জামান আল-মাসউদ।

##ফুলবাড়ীতে এসএসসি ও দাখিল পরীক্ষায় ৫৪ জন শিক্ষার্থীর জিপিএ-৫ লাভ
দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলায় এসএসসি পরীক্ষায় ৫৪ জন শিক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে। দাখিল পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪ জন।
গত শিক্ষাবর্ষে এসএসসি পরীক্ষায় দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলায় ৩৬ টি বিদ্যালয় ও ২ টি স্কুল এন্ড কলেজ এবং ১৫ টি মাদ্রাসা থেকে মোট জিপিএি-৫ পেয়েছেন ৫৮ জন শিক্ষার্থী। জিপিএ-৫ প্রাপ্তীতে উপজেলার শীর্ষে রয়েছে সুজাপুর মডেল উচ্চ বিদ্যালয়।
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা দপ্তর সুত্রে জানা গেছে, সুজাপুর মডের উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ২২ জন, জিএম পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১২জন উত্তর শিবপুর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ৭ জন, ফুলবাড়ী কলিজিয়েট থেকে ২ জন দৌলতপুর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন, সিদ্দিশী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন, পুকুরী স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ১ জন মুরারীপুর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন খয়েরবাড়ী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন উত্তর লক্ষীপুর স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ১ জন দৌলতপুর ইচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন বেতদীঘি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন চাদঁপাড়া উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন, জয়নগর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১ জন, সিএম নিকেতন থেকে ১ জন এবং ফুলবাড়ী মডেল থেকে ১ জন।
এছাড়া দাখিল পরীক্ষায় পানিকাটা দাখিল মাদ্রাসা থেকে ২ জন খজাপুর একরামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা থেকে ১ জন এবং কাজীহাল দহশতিয়া ফাজিল মাদ্রাসা থেকে ১ জন জিপিএ-৫ পেয়েছেন।

##এসএসসি পরীক্ষার ফলাফলে বড়পুকুরিয়া কোল মাইন স্কুল উপজেলার শীর্ষে
দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কোল মাইন স্কুল থেকে ২৫ জন পরীক্ষার্থী এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়ে ২৩ জন জিপিএ-৫ এবং ২ জন এ গ্রেড পেয়েছে। এর মধ্যে ১৯ জন গোল্ডেন এ+ লাভ করেছে।
২০০৮ সালের ১০ জানুয়ারী বড়পুকুরিয়া কোল মাইনং কোম্পানী লিঃ উদ্যোগে স্কুলটি প্রতিষ্টিত হওয়ায়র পর খনির তত্ত্বাবধানে পরিচালিত এই বিদ্যালয় থেকে গত শিক্ষাবর্ষে প্রথম এসএসসি পরীক্ষায় শিক্ষার্থীরা অংশ নেয় এবং জেলার উপজেলা পর্যায়ে তাক লাগানো সাফল্য অর্জন করেছে।

##বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে জনপ্রতিনিধিকে অগ্রনী ভুমিকা পালন করতে হবে
বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে জনপ্রতিনিধিকে অগ্রনী ভুমিকা পালন করতে হবে। মা ও শিশু মৃত্যুর হার কমাতে বাল্য বিবাহ বন্ধের বিকল্প নাই। জনপ্রতিনিধিরা সক্রীয় হলেই বাল্য বিবাহ বন্ধ করা সম্ভব। বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ করতে গ্রামাঞ্চলে ব্যাপক প্রচারনা চালাতে হবে এবং এর কুফল সম্পর্কে সাধারন মানুষকে সচেতন করতে হবে।
বাল্য বিবাহ বন্ধে সরকার ব্যাপক কর্মসূচী পালন করছে। বিশেষ করে পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ গুরুত্বপূর্ন দায়িত্ব পালন করছে। জনপ্রতিনিধিদের বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে প্রশাসন সর্বাত্বক সহযোগিতা করবে। জনপ্রতিনিধি বিশেষ করে মহিলা জনপ্রতিনিধিদের অগ্রনী ভুমিকা পালন করতে হবে। জনপ্রনিধি ছাড়া বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ সম্ভব নয়। এছাড়াও প্রতিটি ইউনিয়নে ব্যাপক সচেতনতা সৃষ্টি করতে হবে। সোমবার দিনাজপুর পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ আয়োজিত “ বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ, নারীর ক্ষমতায়ন, জন্ম বিরতী করণ, মা ও নবজাতকের যতœ ” বিষয়ক নারী জনপ্রতিনিধিদের নিয়ে দিনাজপুর জেলার মহিলা ইউপি সদস্যদের অবহিত করন কর্মশালা দিনাজপুর পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের উপ-পরিচালক ডাঃ দিদারুল ইসলামের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও উন্নয়ন) দিনাজপুর মোঃ তৌফিক আহম্মেদ উপরোক্ত কথা বলেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বিশেষ অতিথি ডেপুটি সিভিল সার্জেন ডাঃ মোঃ নুরুল হুদা, বিএমএ দিনাজপুর জেলা শাকার সাধারন সম্পাদক ডাঃ গোপী নাথ বসাক (এমওএমসিএইচ -এফপি), পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের আই,ই,এম,ইউনিটের মোছাঃ আরজুমান আরা আঞ্জু ও অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন দিনাজপুর সদর উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা লায়লা হুসনে আরা আরজু এবং অনুষ্ঠান বাস্তাবায়নে সার্বিক দায়িত্বে ছিলেন প্রজেক্টশনিষ্ট অমল কুমার সরকার । দিনাজপুর জেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের ৫০ জন মহিলা ইউপি সদস্য কর্মশালায় অংশ গ্রহন করেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের আই,ই,এম,ইউনিটের মোছাঃ আরজুমান আরা আঞ্জু মুল বিষয় বস্তুর উপর আলোচনা করেন এবং অংশগ্রহনকারী মহিলা ইউপি সদস্যরা উন্মুক্ত আলোচনায় অংশ গ্রহন করেন। অংশগ্রহনকারী মহিলা ইউপি সদস্যরা এধরনের আয়োজন ঘন ঘন করার অনুরোধ করেন। শেষে অংশ গ্রহনকারীরা একটি সুপারিশ মালা আয়োজনকারীর প্রতিষ্ঠানের কাছে হস্তান্তর করেন। উন্মুক্ত আলোচনায় গ্রামাঞ্চলে বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ সম্পর্কে নানা সদস্য ও বাধা গুলো নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। শেষ পর্যায়ে দিনাজপুর পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের উপ-পরিচালক ডাঃ দিদারুল ইসলাম কর্মশালার সমাপ্তি ঘোষনা করেন।

##হিলি স্থলবন্দরে লাগাতার হরতাল
বিজিবি হস্তক্ষেপ বন্ধে ব্যাবসায়ীদের ৩ দফা দাবি মেনে না নেয়ায় দিনাজপুরের হিলি স্থল বন্দরে সোমবার সকাল-সন্ধ্যা স্বত:স্ফূর্ত হরতাল পালিত হয়েছে। ফলে অনির্দিষ্ট কালের জন্য ডাকা আমদানী-রপ্তানি বন্ধের ৬ ষ্ট দিন অতিবাহিত হলো।
অপরদিকে, সৃষ্ট সংকটটি নিরসনের লক্ষ্যে দিনাজপুর জেলা প্রশাসকের উদ্যোগে তাঁর কার্যালয়ে সোমবার এক সমঝোতা বৈঠক অনুষ্ঠিত হলেও কোন সীদ্ধান্ত ছাড়াই সেটি সমাপ্ত হয় ।
হিলি স্থলবন্দরে চলমান আন্দোলনকে এলাকার সর্বমহল সমর্থন দিয়ে তৈরী হাকিমপুর সর্বদলীয় সংগ্রাম পরিষদ ও হিলি স্থলবন্দরের ব্যাবসায়ী ও বন্দরটি ব্যাবহারকারী ৫ টি সংগঠনের ব্যানারে তাঁদের পূর্বঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলাকালে হিলি স্থল বন্দরটি আমদানী-রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ থাকার পাশাপাশি কোন প্রকার যানবাহন চলাচল করেনি। ব্যাবসা প্রতিষ্টানও বন্ধ ছিল। চলমান অচলাবস্থা থেকে উত্তরণের লক্ষে দিনাজপুর জেলা প্রশাসক শামীম আল রাজীর উদ্যেগে তাঁর কার্যালয়ে এক সমঝোতা বৈঠক অনুষ্টিত হয়।
অন্যান্যদের মধ্য উপস্থিত ছিলেন, বিজিবি দিনাজপুর সেক্টর কামান্ডার কর্ণেল মামুন আল মাহমুদ, পুলিশ সুপার রুহুল আমীন, বিজিবি জয়পুরহাট-৩ ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে. কর্ণেল আব্দুর রাজ্জাক তরফদার, বিজিবি ফুলবাড়ি-৪০ ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে. কর্ণেল জাহিদুর রশিদ, হাকিমপুর উপজেলা চেয়ারম্যান আকরাম হোসেন মন্ডল, হাকিমপুর ইউএনও আজাহারুল ইসলাম, হাকিমপুর পৌর মেয়র সাখাওয়াত হোসেন শিল্পী, বাংলাহিলি কাষ্টমস্ সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েসন সভাপতি আবুল কাশেম আজাদ, সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমান লিটন প্রমুখ। সভায় আবুল কাশেম আজাদ তাঁদের ৩ দফা দাবি মেনেনেয়ার আহ্বান জানান, এরপ্রেক্ষিতে জেলা প্রশাসক শামিম আল-রাজি বলেন, আগে আপনাদের ডাকা চলমান আন্দোলন কর্মসূচীটি প্রত্যাহার করে নেন। পরে আপনাদের দাবিগুলির বিষয়ে বিবেচনা করা হবে। এর প্রেক্ষিতে আবুল কাশেম আজাদ তাঁর প্রস্তাবটি মেনে না নেয়ায় কোন সীদ্ধান্ত ছাড়ায় বৈঠকটি সমাপ্ত হয়। এদিকে, মঙ্গলবার থেকে লাগাতার হরতালসহ বিজিবির কাছে পন্য বিক্রি বন্ধের নতুন কর্মসুচী দিয়েছে আন্দোলনকারী ব্যবসায়ীরা। ব্যবসায়ীদের আন্দোলনের কারনে গত ৬ দিন থেকে বন্দর দিয়ে আমদানী রফতানী বন্ধ থাকায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের বেঁধে দেয়া লক্ষ্য মাত্রা অর্জিত না হওয়ারই আশংকা প্রকাশ করছেন কাষ্টমস কর্তৃপক্ষ।
অপর দিকে, আন্দোলনের কারনে প্রতিদিন মোটা অংকের লোকসান গুনছেন ব্যবসায়ীরা। এপার ওপার সীমান্তে খালাসের অপেক্ষায় আটকা পড়েছে প্রায় দেড় হাজার পন্য বোঝাই ট্রাক। আটকা পড়া কাঁচাপণ্য পঁচতে শুরু করেছে। হিলি কাঁচামাল আমদানি কারক গ্রুপের আহবায়ক হারুন উর রশিদ হারুন জানান, বন্দর ব্যবহারকারী ব্যবসায়ীদেক প্রতিদিন ডিটেনশন চার্জ গচ্ছা দিতে হচ্ছে। তাতে লোকসান দাঁড়াবে প্রায় ১৫ থেকে ২০ কোটি টাকা। আন্দোলন অব্যাহত থাকলে আমদানী-রফতানী পৌছাবে শুন্যের কোটায়। বিজিবির হয়রানীর বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীদের আন্দোলনের ৬ষ্ঠ দিনেও কোন সুরাহা হয়নি। এমনকি উভয়পক্ষকে নিয়ে আন্দোলন বন্ধ করার জন্য প্রশাসনিক ভাবে কেউ এগিয়েও আসেনি। পানামা পোর্ট লিংক লিঃ এর পার্শিয়াল অপারেশন ম্যানেজার এসএম হায়দার জানান, ব্যবসায়ীদের আন্দোলনের কারনে বাংলাদেশ স্থলবন্দর কর্তৃপক্ষ ও পানামা পোর্ট অথরিটি বন্দরের আয় থেকে বঞ্চিত। বন্দরের শ্রমিক-কর্মচারির ব্যয় নিয়ে বিপাকে পড়েছেন তারা।
হিলি কাস্টমস রাজস্ব কর্মকর্তা মনিরুজ্জামান চৌধুরী জানান, আন্দোলনের কারনে গত ৬ দিনে প্রায় সাড়ে ৬ কোটি টাকার রাজস্ব আয় থেকে বঞ্চিত হয়েছে সরকার। জাতীয় রাজস্ব বোডের বেধে দেয়া লক্ষ্যমাত্রা পুরুন না হওয়ারই আশংখা করছেন ওই রাজস্ব কর্মকর্তা।
উল্লেখ্য, হিলি চেকপোস্ট জিরোপয়েন্টে ভারত থেকে আমদানীকৃত পন্যের চালানের মেনিফেস্টের অপর পাতায় ঈধংঃড়সং অপঃ.১৯৬৯ অমান্য করে বিজিবি সিল, স্বাক্ষর, তারিখ, তালিকা ভুক্তকরনে সময় ক্ষেপন করা ও আমদানীকারকদেক অযথা হয়রানী- মিথ্যা মামলা করার প্রতিবাদে ১২ মে থেকে আন্দোলনে নেমেছে ব্যবসায়ীসহ ৭ টি সংগঠনের নেতা কর্মীরা।
হিলিতে সোমবার সকাল-সন্ধা হরতাল

## ৫ম দিনেও বন্ধ রয়েছে বন্দরের আমদানী-রফতানি কার্যক্রম
হিলি স্থলবন্দরের ব্যবসায়ীদের ডাকা অনির্দিষ্ট কালের ধর্মঘট ৫ম দিনের মতো অব্যাহত রয়েছে। ফলে গত পাঁচদিন ধরে বন্ধ রয়েছে দেশর দ্বিতীয় বৃহত্তম এই স্থলবন্দর দিয়ে আমদানী রফতানি কার্যক্রমসহ পণ্য লোড-আনলোড এবং পরিবহনের কাজ। গত কয়েকদিন ধরে আমদানী রফতানি বন্ধ থাকায় স্থবির হয়ে পড়েছে হিলি স্থলবন্দর এলাকা। এদিকে, হিলি স্থলবন্দরে সৃষ্ট জটিলতা ৫দিনেও সমাধান না হওয়াই আগামীকাল সোমবার হিলিতে সকাল-সন্ধা হরতালের ডাক দিয়েছে আন্দোলনকারীরা।
বাংলাহিলি সিএন্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি আবুল কাশেম আজাদ জানান, বাধ্যহয়েই হরতাল দেওয়া হয়েছে। গত ৫দিনেরও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ কোন পদক্ষেপ না নেয়াই হরতাল আহ্বান করা হয়েছে। হিলি আমদানীকারক গ্রুপের সভাপতি হারুন উর রশিদ জানান, আমাদের হরতালের প্রতি স্থানীয় সকল রাজনৈতিক দলের সমর্থন রয়েছে। বিজিবি কর্তৃক হয়রানীর প্রতিবাদে আজ রোববারেও বেলা সাড়ে ১১টায় বন্দরের চারমাথা মোড়ে রাস্তা অবোরধ করে অবস্থান কর্মসূচী পালন করেছে বন্দরের আমদানী-রফতানি কারক, সিএন্ডএফ এজেন্ট, ট্রাক ও কুলি শ্রমিক সংগঠনসহ বন্দর ব্যবহার কারী সংগঠন গুলো।
এদিকে, হাকিমপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আজহারুল ইসলাম জানান, বন্দরের জটিলতা নিরসনে সরকারের উচ্ছ পর্যায়ে আলোচনা হচ্ছে। দু’এক দিনের মধ্যে সমস্যার সমাধান হবে বলে দাবি করেন তিনি।
উল্লেখ্য, বন্দরদিয়ে আমদানীকৃত পণ্যের মেনিফিষ্টে বা ট্রাক চালানে বিজিজি কর্তৃক সীল মারা, ব্যবসায়ীদের সাথে অসৌজন্য আচরণ বন্ধ এবং জয়পুরহাট ৩ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়কের অপসারণের দাবিতে গত বুধবার থেকে বন্দরে ধর্মঘট পালন করে আসছে ব্যবসায়ীসহ বন্দর ব্যবহার কারীরা।

##বিরামপুরে আদর্শ হাইস্কুল শিক্ষাবোর্ডে ২০তম ও জেলায় ৭ম স্থান লাভ করেছে
বিরামপুর আদর্শ হাইস্কুল অ্যান্ড ভোকেশনাল ইন্সটিটিউট এবারও এস,এস,মি পরীক্ষায় দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের সেরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের তালিকায় ২০তম স্থান এবং দিনাজপুর জেলার মধ্যে ৭ম স্থান লাভ করেছে। স্কুলের ৭১ জন শিক্ষার্থীর মাঝে শতভাগ পাশ করেছে। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৫৩ জন। ভোকেশনাল শাখায় ৩৩ জনের মাঝে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৮ জন।
গতবছর শিক্ষাবোর্ডের সেরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ১৩ তম স্থান লাভ করেছিল। ভাল ফলাফলের প্রতিক্রিয়ায় আদর্শ হাইস্কুল অ্যান্ড ভোকেশনাল ইন্সটিটিউট এর পরিচালনা কমিটির সভাপতি অধ্যাপক মুহাদ্দিস এনামুল হক জানান, মহান আল¬াহ তা’আলার খাছ রহমত, শিক্ষক শিক্ষিকা মন্ডলীর ঐকান্তিক প্রচেষ্টা, অভিভাবকদের নিবিড় তত্ত্ববধান ও শিক্ষার্থীদের প্রানান্তকর প্রচেষ্টায় এ ভাল ফলাফল করা সম্ভব হয়েছে। এ ভাল ফলাফলের জন্য পরিচালনা কমিটির সভাপতি অধ্যাপক মুহাদ্দিস এনামুল হক, প্রধান শিক্ষক সাইদুর রহমান ও ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোকছেদ আলী চৌধুরী মহান আল¬াহ তা’আলার দরবারে শোকরিয়া জানান এবং অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।

##বিরামপুরে বিজুল কামিল মাদরাসা রংপুর বিভাগে ১০তম স্থান লাভ করেছে
বিরামপুর বিজুল দারুল হুদা কামিল স্নাতকোত্তর মাদরাসা দাখিল পরীক্ষায় রংপুর বিভাগের সেরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের তালিকায় ১০তম স্থান লাভ করেছে। মোট ৬০ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৭ জন।
ভাল ফলাফলের জন্য বিজুল দারুল হুদা কামিল স্নাতকোত্তর মাদরাসা এর পরিচালনা কমিটির সভাপতি মহসিন আলী সরকার, অধ্যক্ষ ডক্টর নূরুল ইসলাম মহান আল¬াহর দরবারে শোকরিয়া জানান এবং অভিভাবক, এলাকাবাসী ও শিক্ষার্থীদের কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।
সেটেলমেন্ট অফিসার আকতারের দুণীতির প্রতিবাদে ও অপসারনের দাবীতে

## নবাবগঞ্জে অফিস ঘেরাও ॥ ইউএনও’র আশ্বাস ॥ অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন ॥
১৮ মে রবিরার, দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলার সহকারী সেটেলমেন্ট অফিসার আকতার হোসেনের ঘুষ-দুণীতির প্রতিবাদ ও অপসারনের দাবীতে ভূমি মালিকরা অফিস ঘেরাও করে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে। দুপুর ১২ টা থেকে ১ ঘন্টা নবাবগঞ্জ সেটেলমেন্ট অফিস ঘেরাও চলাকালে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সৈয়দ ফরহাদ হোসেন উপস্থিত হয়ে ভবিষতে এধরনের অভিযোগ না হয় এ বিষয়ে সহকারী সেটেলমেন্ট অফিসার আকতার হোসেনকে সর্তক করেন। এর আগে নবাবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ আমিরুল ইসলামের নেতৃত্বে অফিসার ও ফোর্স উদ্ভুত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে অবস্থান নেয়। ভুক্তভোগি জমি মালিকরা এ সময় শান্তিপূর্ন অবস্থান নিয়ে সহকারী সেটেলমেন্ট অফিসার আকতার হোসেনের ঘুষ-দুণীতির অভিযোগে নানা শ্লোগানে তার অপসারন দাবী করেন।
থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আমিরুল ইসলাম জানিয়েছেন, পুলিশ উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করায় শান্তিভংগের ঘটনা ঘটেনি।যুবলীগ নেতা শাহিন ও ছাত্রলীগ নেতা তহিদুল ইসলাম ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ভুক্তভোগি ভুমি মালিকদের আন্দোলনে সংহতি প্রকাশ করে সহকারী সেটেলমেন্ট অফিসার আকতার হোসেনের ঘুষ-দুণীতির প্রতিবাদ ও তার অপসারন দাবী করেন।
ঘুষ-দুণীতির দায়ে অভিযুক্ত নবাবগঞ্জের সহকারী সেটেলমেন্ট অফিসার আকতার হোসেন বলেছেন, অভিযোগ সঠিক নয়।






মন্তব্য চালু নেই