মেইন ম্যেনু

ঘর থেকে ‘নামকরা’ রেডিও জকি’র ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

ভারতের হায়দরাবাদের নামকরা রেডিও জকি সন্ধ্যা সিংহের (২৮) ঝুলন্ত দেহ তার ঘর থেকে উদ্ধার করল পুলিশ। তিনি রেডিও চারমিনারে কাজ করতেন।

প্রাথমিক ভাবে দেশটির পুলিশের অনুমান, সন্ধ্যা আত্মহত্যা করেছেন। কিন্তু সন্ধ্যার পরিবারের অভিযোগ, পণের জন্য তাঁদের মেয়েকে খুন করেছেন তাঁর স্বামী বৈভব বিশাল। যদিও এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন বৈভব। তিনি পাল্টা দাবি করেন, কাজ থেকে ঘরে ফিরে স্ত্রীকে সিলিং ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখে অসুস্থ হয়ে পড়েন। পুলিশ সূত্রে খবর, সন্ধ্যা আত্মহত্যা করেছেন নাকি তাঁকে মেরে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে, তা নিয়ে তদন্ত শুরু হয়েছে।

সন্ধ্যার স্বামী সেনাবাহিনীতে রয়েছেন। বৈভবকে যাতে জেরা করা যায় সে বিষয়ে সেনার সঙ্গে যোগাযো‌গ করে পুলিশ। সেনা সূত্রে জানানো হয়েছে, বৈভব সুস্থ হয়ে উঠলেই তাঁকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হবে। সন্ধ্যার এক সহকর্মী আবদুল সামাদ জানান, গত সপ্তাহে সোমবার কাজে এসছিলেন তিনি। তাঁকে খুব বিচলিত দেখাচ্ছিল। কোনও বিষয় নিয়ে খুব চাপে ছিলেন বলে জানিয়েছেন সামাদ। ওই দিনই শেষ কাজে এসেছিলেন সন্ধ্যা। প্রতিবেশীরাও জানান, ওই দিনই শেষ বার সন্ধ্যাকে বাড়ির বাইরে দেখা গিয়েছিল।

২০১৫-য় বৈভবের সঙ্গে সন্ধ্যার বিয়ে হয়। তাঁরা দু’জনেই উত্তরপ্রদেশের গাজিয়াবাদের বাসিন্দা। কর্মসূত্রে স্বামী-স্ত্রী হায়দরাবাদের বোলারামে থাকতেন। সূত্র: আনন্দবাজার।






মন্তব্য চালু নেই