মেইন ম্যেনু

কীভাবে বুঝবেন প্রেমিক আপনাকে বিয়ে করতে চায় কি চায় না?

যেসব মেয়েরা প্রেম করছেন, তাঁদের সকলের মনেই ঘুরেফিরে একটাই প্রশ্ন আসে- “ভালোবাসার পুরুষটি কি আমাকে বিয়ে করতে চায়?” এখন প্রশ্ন হচ্ছে, আপনি কীভাবে বুঝবেন পুরুষটি আপনাকে বিয়ে করার কথা ভাবছে বা আপনি কীভাবে বুঝবেন যে আপনিই তাঁর সেই স্বপ্ন নারী? এই ব্যাপারটি বেশিরভাগ পুরুষই মুখ ফুটে বলেন না, কিন্তু বুঝে নেয়ার জন্য আছে কিছু দারুণ কৌশল। কী রকম? জেনে নিতে চাইলে পড়ে দেখুন এই ফিচার। জেনে নিন পুরুষটি আপনাকে বিয়ে করবে কি করবে না, সেটা বুঝে নেয়ার লক্ষণগুলো।

১) তাঁর যদি আপনাকে বিয়ের পরিকল্পনা থাকে, তাহলে তাঁর মাঝে এই সম্পর্ক নিয়ে এক ধরণের স্থিরতা দেখতে পাবভেন আপনি। তিনি অনিশ্চয়তা বা অস্থিরতায় ভুগবেন না, কথায় কথায় ব্রেকাপের হুমকি দেবেন না।

২) পুরুষেরা যে নারীকে বিয়ে করতে চান, তাঁর ব্যাপারে খুব রক্ষণশীল আচরণ দেখিয়ে থাকেন। প্রেমিকার পোশাক থেকে শুরু করে বন্ধুবান্ধব পর্যন্ত সকল বিষয়েই যদি প্রেমিক মাথা ঘামাতে শুরু করেন, তাহলে বুঝতে হবে এই মেয়েটিকেই তিনি জীবনসঙ্গী করতে চান।

৩) পুরুষ যখন কোন নারীকে স্ত্রী বানাতে চান, তখন নিজেই সম্পর্কের হাল ধরেন। শুধু প্রেমিকার খেয়াল রাখাই নয়, বিয়ের আগেও একজন স্বামীর মত প্রেমিকার সকল বিষয়ে নিজেই এগিয়ে যান এবং সম্পর্কটি নিজেই পরিচালিত করেন। এমনকি প্রেমিকার আর্থিক দায়িত্বও নিজে নিতে চান পুরুষ।

৪) যখন পুরুষটি নিজের পরিবার ও বন্ধুদের সামনে আপনাকে নিজের হবু স্ত্রী হিসাবে পরিচয় করিয়ে দেবে, নিশ্চিত হবেন যে তিনি আপনাকে বিয়ে করতে চান।

৫) পুরুষ যখন কোন নারীকে বিয়ে করতে চায়, তখন তিনি সারা পৃথিবীর সামনে সেই নারীর সম্মানকে উঁচু রাখার চেষ্টা করেন। কখনো এমন কিছু বলেন না করেন না, যাতে প্রেমিকার অসম্মান হয়। কারণ এতে আসলে পুরুষটিরই ক্ষতি।

৬) একটু খেয়াল করলেই দেখবেন যে তিনি এখন আর অন্য মেয়েদের প্রতি আগ্রহ বোধ করেন না। তাঁর মনযোগের কেন্দ্র জুড়ে আছেন আপনি।

৭) প্রেমিক হঠাৎ করেই বেশ সঞ্চয়ী হয়ে উঠেছেন, ভবিষ্যতের আর্থিক পরিকল্পনায় মন দিয়েছেন।

৮) আপনার পরিবারের সকলে বিষয়েই তিনি আগ্রহ প্রকাশ করছেন, বিপদে-আপদে এগিয়ে আসছেন।

৯) আপনার সাথে প্রায়ই বিয়ে, সন্তান, দাম্পত্য ইত্যাদি নিয়ে সিরিয়াস আলাপ হচ্ছে তাঁর এবং আলাপগুলো তিনিই শুরু করছেন।

১০) তিনি ক্রমশ বদলে যাচ্ছেন। দিন দিন আপনার প্রতি তাঁর ভালোবাসা কেবল বাড়ছে।

ভালোবাসার কোন হিসাব হয় না, সত্যিকারের ভালোবাসা হয় বেহিসাবী। তবে একটা জিনিস মনে রাখবেন, কোন পুরুষ যখন সত্যি সত্যি কোন নারীর সাথে নিজের জীবন কাটাতে চান, হুট করেই তখন তাঁদের মাঝে একটি ম্যাচিউরিটি চলে আসে। আর এটাই আপনাকে বুঝতে সাহায্য করবে যে তিনি আপনার ব্যাপারে আসলে কতটা সিরিয়াস।

সূত্র- সাইকোলজিটুডে






মন্তব্য চালু নেই