মেইন ম্যেনু

এই তারকার জন্য পাগল ছিলেন ট্রাম্প!

সুন্দরী প্রতিযোগিতার ‘মহাজন’ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নারী-সঙ্গের গল্প যেন শেষ হওয়ার নয়। এতে এবার যোগ হয়েছেন ‘টোয়ালাইট’ খ্যাত তারকা ক্রিস্টিন স্টুয়ার্ট।

ট্রাম্প তার জন্য উন্মাদ ছিলেন বলে বিনোদন ম্যাগাজিন ভ্যারাইটি’কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে দাবি করেছেন এই ‘টোয়ালাইট’ তারকা।

‘সহ-তারকা’ রবার্ট প্যাটিনসনের সঙ্গে প্রতারণার বিষয়টি ফাঁস হওয়ার পর ক্রিস্টিনকে আক্রমণ করে ২০১২ সালে ট্রাম্পের বেশ কয়েকটি টুইটকে ইঙ্গিত করে তিনি এ দাবি করেন।

যুক্তরাষ্ট্রের উটাহ’র পার্ক সিটিতে সানডেন্স ফিল্ম ফেস্টিভালে এসে প্রথমবারের মতো এনিয়ে মুখ খোলেন ২৬ বছর বয়সী এই অভিনেত্রী।

ট্রাম্পের মালিকানাধীন এনবিসি’র ‘দ্য সেলেব্রিটি অ্যাপ্রেন্টিস’ রিয়ালিটি শো’র তারকা থাকা অবস্থায় ক্রিস্টিন এমন দাবি করলেন।

ক্রিস্টিন বলেন, ‘বছর দুয়েক আগে সে (ট্রাম্প) আমার জন্য পাগল ছিল, প্রকৃত অর্থেই আমার দিওয়ানা, যাকে উন্মাদ বলা চলে।’

সদ্য শপথ নেয়া প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ২০১২ সালের অক্টোবর ও নভেম্বরে এই হলিউড তারকাকে নিয়ে পাঁচটি টুইট করেন। ‘স্লো হোয়াইট অ্যান্ড দ্য হান্টসম্যান’র এর পরিচালক রুপার্ট স্যান্ডার্সের সঙ্গে আলিঙ্গনরত ক্রিস্টিনের ছবি ফাঁস হলে ওই সময় তার বিরুদ্ধে প্যাটিনসনের সঙ্গে প্রতারণার অভিযোগ ওঠে।

অবশ্য ওই ছবি ফাঁসের পর ‘অবিবেচনাপ্রসূত মূহুর্তের’ কারণে ‘দুঃখ দেয়া এবং বিব্রত করার’ জন্য ক্ষমাপ্রার্থনা করেছিলেন ক্রিস্টিন।

এরপর ১৭ অক্টোবর এক টুইটে রাখঢাক না করেই ট্রাম্প বলেছিলেন, ‘ক্রিস্টিন স্টুয়ার্টকে ফেরত নেয়া উচিত নয় রবার্ট প্যাটিনসনের।’

তিনি আরও বলেছিলেন, ‘সে (ক্রিস্টিন) তার সঙ্গে একটি কুকুরের মতো প্রতারণা করেছে এবং এটি আবার করবে- শুধু দেখতে থাকুন। সে (প্যানিটসন) এর চেয়ে ভালো কিছু করতে পারে।’

এরপর ২২ অক্টোবর প্যাটিনসনকে অনেকটা অনুনয় করে ট্রাম্প বলেন, ‘ক্রিস্টিনকে ছুঁড়ে ফেলো। বছর দুয়েক পরই সে (প্যাটিনসন) আমাকে ধন্যবাদ দেবে। বুদ্ধিমান হও রবার্ট (প্যাটিনসন)।’






মন্তব্য চালু নেই